দেশের পোশাকশিল্পে চট্টগ্রামের অবদান ৫০ ভাগ

বিজিএমইর ইফতার মাহফিলে রুবানা হক

0

দেশের পোশাকশিল্প খাতে চট্টগ্রামের অবদান ৫০ ভাগ। কারণ এখানে বন্দর রয়েছে। বন্দর ঠিক মানে দেশের ব্যবসা-বাণিজ্য ঠিক। বন্দর ঠিক থাকলে আমরা ঠিক থাকব।

চট্টগ্রামের নেভী কনভেনশন হলে বিজিএমইএ চট্টগ্রাম শাখার ইফতার ও দোয়া মাহফিলে এসব কথা বলেন সংগঠনটির সভাপতি রুবানা হক।

তিনি আরও বলেন, ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পে কিছু সমস্যা রয়েছে। সেই সমস্যা সমাধানে আমরা চেষ্টা করছি। বিভিন্নভাবে চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি এসব সমস্যার সমাধান করতে।

সম্প্রতি বিজিএমইএর নির্বাচনে তাকে সভাপতি পদে নির্বাচিত করায় ধন্যবাদ জানিয়ে রুবানা হক বলেন, নির্বাচনের আগে যে প্রমিজগুলো করেছিলাম সেগুলো বাস্তবায়ন করতে চাই। এজন্য চট্টগ্রামে ঘন ঘন আসব। আপনারা ব্যবসা-বাণিজ্যের ক্ষেত্রে চট্টগ্রামের সমস্যাগুলোর কথা জানান, আমরা আলাপ-আলোচনার মাধমে সেগুলো বাস্তবায়ন করবো।

চট্টগ্রামে অবস্থিত এশিয়ান ইউনিভার্সিটি ফর উইম্যানে ১০০ জন গার্মেন্টস কর্মী পড়াশোনা করছে। আগামী বছর তারা গ্র্যাজুয়েশান সম্পন্ন করে বের হবে। এভাবে যদি আমরা পোশাকর্মীদের উচ্চশিক্ষার সুযোগ করে দিই তাহলে এই খাত বিশ্বব্যাপী আরও সমৃদ্ধ হবে।

ইফতার মাহফিলের স্বাগত বক্তব্য দেন বিজিএমইএর চট্টগ্রামের প্রথম সহ-সভাপতি আবদুস সালাম।
উপস্থিত ছিলেন ব্রিটিশ হাইকমিশনার রবার্ট চ্যাটার্টন ডিকসন, আফগানিস্তানের প্রেসিডেন্টের প্রধান উপদেষ্টা মোহাম্মদ হুমায়ুন কায়ুমী, এশিয়ান উইমেন্স ইউনিভার্সিটির চ্যান্সেলর চেরি ব্লেয়ার, ভাইস চ্যান্সেলর নির্মলা রাও, বন্দর চেয়ারম্যান রিয়ার এডমিরাল জুলফিকার আজিজ, ২৪ পদাতিক ডিভিশনের জিওসি মেজর জেনারেল মতিউর রহমান, ডিজিএফআই এর ডেপুটি কমান্ডার ব্রিগেডিয়ার জেনারেল মো. এমদাদুল্লাহ ভূঁইয়া, বিজিএমইএর সিনিয়র সহ-সভাপতি ফয়সাল সামাদ, সহ-সভাপতি (অর্থ) এমএ রহিম ফিরোজ, সহ-সভাপতি আরশাদ জামাল দিপু, প্রথম সহ-সভাপতি নাসিরুদ্দিন আহমেদ চৌধুরী ও মঈনুদ্দিন আহমেদ মিন্টু, কাস্টমস (বন্ড) কমিশনার মোহাম্মদ আজিজুর রহমান ও বাংলাদেশ ব্যাংকের নির্বাহী পরিচালক আবু ফারাহ মোহাম্মদ নাসের।

এসসি/এএইচ

Loading...
আরও পড়ুন