ঘুমধুমের সাবেক চেয়ারম্যানসহ ৫ আসামি কারাগারে

ইমন হত্যা মামলা

0

বান্দরবানের ঘুমধুমে খুন হওয়া কক্সবাজারের উখিয়ার যুবলীগ নেতা চাঞ্চল্যকর ইমন হত্যা মামলার এজাহারভুক্ত পাঁচ আসামিকে জামিন নামঞ্জুর করে জেল হাজতে প্রেরণ করেছেন বান্দরবান জেলা ও দায়রা জজ আদালত-১। পাশাপাশি পলাতক দুই আসামি সমিরণ বড়ুয়া ও শাহাজান ড্রাইভারের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি করেছে এ আদালত।

এদিকে জেল হাজতে যাওয়া আসামিদের রিমান্ডে নিয়ে এ চাঞ্চল্যকর ও বর্বর হত্যাকাণ্ডের মূল রহস্য বের করার দাবী জানিয়েছেন যুবলীগ নেতা নিহত ইমনের মুক্তিযোদ্ধা পরিবার।
রোববার (৯ জুন) এই হত্যা মামলার ৭ আসামি আদালতে হাজির হয়ে জামিনের আবেদন করলে জেলা জজ মো. ইসমাইল জামিন আবেদন নাকচ করে এ আদেশ দেন।

কারাগারে প্রেরণ করা আসামিরা হল, মামলার প্রধান আসামি সাবেক চেয়ারম্যান দীপক বড়ুয়া দিপু (৪০), বাবুল বড়ুয়া (৪৮), প্রদ্বীপ বড়ুয়া শিবু (৫২), রুপন বড়ুয়া (৪৪) ও মো. করিম (৪০)।
মামলার এজাহার থেকে জানা যায়, গত ২৪ এপ্রিল বান্দরবানের নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলার ঘুমধুমে যুবলীগ নেতা ইমন বড়ুয়া (৩৫) গাছ চিরাই করতে ঘুমধুম ইউনিয়নের সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান দীপক বড়ুয়ার মালিকানাধীন স’মিলে গেলে জমির বিরোধের জেরে আসামিরা দলবল নিয়ে ইমনের উপর হামলায় চালায়। এক পর্যায়ে তারা তাকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে এবং লাঠি দিয়ে পিঠিয়ে রক্তাক্ত (জখম) করে। পরে স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে প্রথমে উখিয়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স পরে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নিয়ে যায়। ওখানে তার শারীরিক অবস্থার অবণতি হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে চট্টগ্রাম মেডিকেল হাসপাতালে রেফার করে। চমেক হাসপাতালে নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।

এ ঘটনায় ইমন বড়ুয়ার বড় বোন তান্নি বড়ুয়া বাদী হয়ে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। এ চাঞ্চল্যকর ইমন হত্যার মামলার এজাহারভুক্ত আসামিরা আদালতে আত্মসর্মপণ করে জামিনের আবেদন জানালে আদালত ৭ জনের মধ্যে পাঁচ জনকে কারাগারে পাঠান।

মামলার ব্যাপরে বাদী পক্ষের আইনজীবি মুহাম্মদ আবু তালেব বলেন, ‘এই হত্যাকাণ্ড বর্বরতার শেষ দৃষ্টান্ত। ইমনকে অমানবিকভাবে কুপিয়ে এবং পিটিয়ে হত্যা করা হয়েছে। বিষয়টি মাননীয় আদালত ভালোভাবে আমলে নিয়ে হত্যাকাণ্ডের সাথে জড়িতদের কারাগারে পাঠিয়েছেন।

এএইচ

Loading...
আরও পড়ুন