২২ ফেব্রুয়ারি খুলে যাচ্ছে শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, জানালেন শিক্ষামন্ত্রী

0

অবশেষে ২২ ফেব্রুয়ারি থেকে সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়া হচ্ছে। ২১ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের চলমান ছুটি আর বাড়ানো হবে না।

শনিবার (১২ ফেব্রুয়ারি) জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ডের (এনসিটিবি) এক কর্মশালায় সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে ডা. দীপু মনি এ কথা জানিয়েছেন।

শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেন, করোনার সংক্রমণ কমছে, আমরা আশা করছি ২২ ফেব্রুয়ারি থেকে সকল শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়া সম্ভব হবে।

দীপু মনি বলেন, ‘করোনা সংক্রমণের হার কমার খবর পাচ্ছি। আমরা আশা করছি, এ হার আরও কমবে। ২২ ফেব্রুয়ারি থেকে শ্রেণি কার্যক্রম পুরোদমে শুরু করা যাবে। আমরা আশা করছি, মহামারির কারণে শিক্ষার্থীদের শিক্ষাজীবন আর ব্যাহত হবে না।’

তিনি বলেন, ‘দুদিন পরে করোনা সংক্রান্ত জাতীয় কারিগরি পরামর্শক কমিটির সঙ্গে আমাদের বৈঠক হবে। সেখানে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত হবে।’

তবে এর আগেই শনিবার (১২ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহেদ মালেক বলে দিয়েছেন, ‘করোনা পরিস্থিতি অনেক ভালো। তাই আগামী একুশে ফেব্রুয়ারি পর দেশের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়া হলে কোনো আপত্তি থাকবে না।’

স্বাস্থ্যমন্ত্রী এ সময় বলেন, বর্তমান করোনা পরিস্থিতি নিয়ে প্রধানমন্ত্রী ও শিক্ষামন্ত্রীর সঙ্গে আলোচনা হয়েছে। বিশ্বের সব দেশের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলা রয়েছে। এ পর্যন্ত প্রায় ২৮ লাখ শিক্ষার্থীকে টিকা দেওয়া হয়েছে। মাদ্রাসার আরও ৪০ লাখ শিক্ষার্থীকে টিকার আওতায় আনা হয়েছে। এ ছাড়া শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার পর কোনো শিক্ষার্থীর সমস্যা হলে তাৎক্ষণিকভাবে তা সমাধানের ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

২০২০ সালের ৮ মার্চ দেশে করোনা রোগী শনাক্ত হলে ১৬ মার্চ থেকে দেশের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ ঘোষণা করে সরকার। এরপর দফায় দফায় ছুটি বাড়িয়ে প্রায় দেড় বছর পর সীমিত পরিসরে সশরীরে শ্রেণি পাঠদান শুরু হয় ২০২১ সালের ১২ সেপ্টেম্বর থেকে।

কিন্তু নতুন বছরের শুরুতে হঠাৎ করে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় গত ২২ জানুয়ারি থেকে প্রাথমিক ও ২৩ জানুয়ারি থেকে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরাসরি শ্রেণি পাঠদান বন্ধ ঘোষণা করা হয়। ৬ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত দুই সপ্তাহ বন্ধ রাখার ঘোষণা দেওয়া হয়। এরপর জাতীয় কারিগরি পরামর্শক কমিটির সুপারিশে আবার ২১ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত দুই সপ্তাহ বন্ধ ঘোষণা করা হয়।

সিপি

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm