আক্রান্ত
২১০৯২
সুস্থ
১৬৪৭৩
মৃত্যু
৩০২

২০ হাজারের মাইলফলকে চট্টগ্রামের করোনা রোগী

2

করোনা শনাক্তের ছয় মাসের মাথায় ২০ হাজারের মাইলফলক অতিক্রম করলো চট্টগ্রাম। এর মধ্যে শেষ পাঁচ হাজার পূর্ণ হতে সময় লেগেছে ৬৯ দিন। গত ৯ আগস্ট চট্টগ্রামে করোনা শনাক্ত ১৫ হাজার পেরিয়েছিল। সেপ্টেম্বর মাসজোরে করোনা শনাক্তের পরিমাণ কমতে থাকলেও অক্টোবর মাসে এসে সেটি আবার বাড়তে থাকে। তারই ধারাবাহিকতায় গত ২৪ ঘণ্টায় চট্টগ্রামে করোনা শনাক্ত হলেন আরও ৮২ জন।

এ নিয়ে চট্টগ্রামে মোট করোনা শনাক্ত রোগী এখন ২০ হাজার ৫৫ জন। এদের মধ্যে নগরের ১৪ হাজার ৫৭১ জন এবং বিভিন্ন উপজেলার ৫ হাজার ৪৮৪ জন। আক্রান্তদের মধ্যে মারা গেছেন ৩০১ জন, যাদের ২০৮ জন নগরের এবং ৯৩ জন উপজেলার। অন্যদিকে ১৬ অক্টোবর পর্যন্ত করোনা থেকে সুস্থতা লাভ করেছেন ১৫ হাজার ৬৯৬ জন।

শনিবার (১৭ অক্টোবর) চট্টগ্রামের সিভিল সার্জন ডা. সেখ ফজলে রাব্বি এসব তথ্য জানান।

তিনি জানান, গত ২৪ ঘন্টায় চট্টগ্রামের সরকারি পাঁচটি, বেসরকারি তিনটি এবং কক্সবাজারের একটি ল্যাব মিলে ৭৪৮ জনের নমুনা পরীক্ষা করে করোনা শনাক্ত হয়েছে ৮২ জনের দেহে। এদের মধ্যে ৭৫ জন নগরের ও ৭ জন বিভিন্ন উপজেলার বাসিন্দা। গত ২৪ ঘণ্টায় চট্টগ্রামে কারও মৃত্যু হয়নি।

সিভিল সার্জনের তথ্যানুযায়ী গত ২৪ ঘণ্টায় চট্টগ্রামের প্রধান করোনা পরীক্ষাগার ফৌজদারহাটের বাংলাদেশ ইনস্টিটিউট অব ট্রপিক্যাল অ্যান্ড ইনফেকশাস ডিজিজেস (বিআইটিআইডি)-তে বিদেশগামীদের বাধ্যতামূলক করানো টেস্টসহ ২০৭ জনের নমুনা পরীক্ষা করানো হয়। তাতে করোনা শনাক্ত হয় ১০ জনের দেহে।

চট্টগ্রাম ভেটেরিনারি বিশ্ববিদ্যালয় (সিভাসু) ল্যাবে গত ২৪ ঘণ্টায় ৫৮ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ১০ জনের দেহে করোনা শনাক্ত হয়।

চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ ল্যাবে ২৪ ঘণ্টায় ২৪০ জনের নমুনা পরীক্ষা করোনা করা হয়। তাতে করোনা শনাক্ত হয় দিনের সর্বোচ্চ ৩০ জনের দেহে।

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ল্যাবে গত ২৪ ঘণ্টায় ৬৮ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ১১ জনের দেহে করোনা পাওয়া গেছে।

বেসরকারি ইম্পেরিয়াল হাসপাতাল ল্যাবে গত ২৪ ঘণ্টায় ৫৪ জনের নমুনার মধ্যে ৮ জনের মধ্যে করোনার জীবাণু পাওয়া গেছে।

চট্টগ্রামের আরেকটি বেসরকারি করোনা পরীক্ষাগার শেভরণ ল্যাবে ২৪ ঘণ্টায় ৯৯ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ৯ জনের দেহে করোনা শনাক্ত হয়।

চট্টগ্রামে বেসরকারি পর্যায়ে নতুন যুক্ত হওয়া করোনার আরেকটি পরীক্ষাগার চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতালে ১১ জনের নমুনা পরীক্ষা করে ৪ জনের দেহে করোনাভাইরাসের উপস্থিতি পাওয়া যায়।

কক্সবাজার মেডিকেল কলেজ ল্যাবে গত ২৪ ঘণ্টায় ১১ জনের নমুনা পরীক্ষা করওে কারও পজিটিভ আসেনি।

অন্যদিকে, চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতাল রিজিওন্যাল টিউবারকুলোসিস র‌্যাফারেল ল্যাবরেটরিতেও (আরটিআরএল) ২৪ ঘণ্টায় কারও নমুনা পরীক্ষা হয়নি।

উপজেলা পর্যায়ে নতুন শনাক্ত ৭ জনের ব্যাপারে বিস্তারিত তথ্য সিভিল সার্জনের দেয়া রিপোর্টে ছিল না।

এমএহক

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

ManaratResponsive
2 মন্তব্য
  1. Tariqul islam বলেছেন

    আক্রান্ত ১৯৯৭৩, সুস্থ ১৫৬৭২, মৃত্যু ৩০১।
    বাকি ৪০০০ গেল কই?

    এর নাম সাংবাদিকতা নাকি সাংঘাতিকতা?

  2. Info বলেছেন

    হিসাব ঠিকই আছে। এই ৪ হাজার এখনও অসুস্থ বা করোনার সঙ্গে লড়ছে।

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

আরও পড়ুন
ksrm