১০৮ নেতা চট্টগ্রাম নগর যুবলীগের শীর্ষ দুই পদে বসতে চান, উত্তরে ৩১ ও দক্ষিণে আগ্রহী ৫২ জন

0

বাংলাদেশ আওয়ামী যুবলীগের চট্টগ্রাম জেলার তিন শাখার শীর্ষ দুই পদের জন্য জীবনবৃত্তান্ত বা সিভি জমা দেওয়ার সময় শেষ হল মঙ্গলবার (৫ এপ্রিল)। গত ২ এপ্রিল থেকে ৫ এপ্রিল পর্যন্ত চট্টগ্রাম উত্তর জেলা, দক্ষিণ জেলা ও মহানগর যুবলীগের পদ প্রত্যাশী নেতাদের কেন্দ্রীয় দপ্তরে জীবনবৃত্তান্ত জমা দেওয়ার নির্দেশনা দিয়েছিল কেন্দ্রীয় যুবলীগ।

পদের জন্য জীবনবৃত্তান্ত বা সিভি জমা দেওয়ার জন্য ঢাকা গেছেন চট্টগ্রামের অনেক নেতাই
পদের জন্য জীবনবৃত্তান্ত বা সিভি জমা দেওয়ার জন্য ঢাকা গেছেন চট্টগ্রামের অনেক নেতাই

৩ দিনে এই ৩ জেলার শীর্ষ দুই পদের জন্য প্রায় ২০০ জীবনবৃত্তান্ত জমা পড়েছে বলে কেন্দ্রীয় যুবলীগ সূত্রে জানা গেছে। এর মধ্যে ১০৮টি সিভি জমা পড়েছে শুধুমাত্র মহানগর যুবলীগের শীর্ষ দুই পদের জন্য। নগরের সভাপতি পদে ৩৫ আর সাধারণ সম্পাদক পদে ৭৩ জন সিভি জমা দিয়েছেন। বাকি দুই ইউনিটের মধ্যে চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলায় সভাপতি পদে ১৩ জন ও সাধারণ সম্পাদক পদে ৩৯টি সিভি জমা পড়েছে। অন্যদিকে চট্টগ্রাম উত্তর জেলায় সভাপতি পদে ৯ জন ও সাধারণ সম্পাদক পদে ২২ জন সিভি জমা দিয়েছেন।

এর মধ্যে নগর যুবলীগের শীর্ষ দুই পদে সিভি জমা দেওয়া নেতাদের মধ্যে আলোচনায় আছেন নগর যুবলীগের বর্তমান কমিটির দুই যুগ্ম আহ্বায়ক মাহবুবুল হক সুমন, দিদারুল আলম, নগর ছাত্রলীগের স্টিয়ারিং কমিটির দুই নেতা এম আর আজিম ও হাসান মুরাদ বিপ্লব, দেবাশীষ পাল দেবু, করোনা আইসোলেশন সেন্টারের উদ্যোক্তা ও কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সদস্য সাজ্জাত হোসেন, নগর ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক নুরুল আজিম রনি, চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ফজলে রাব্বি সুজন এবং আগের কমিটির সহ দপ্তর সম্পাদক মাহবুব আলম আজাদ।

চট্টগ্রাম উত্তর জেলায় শীর্ষ দুই পদে সিভি জমা দিয়েছেন সভাপতি পদে নুরুল মোস্তফা মানিক, ইঞ্জিনিয়ার হাসান মুরাদ, এস এম রাসেদুল আলম, নাসির হায়দার বাবুল, মজিবুর রহমান স্বপন, আবুল বসার, গোলাম কিবরিয়া, এডভোকেট দীপক দত্ত, রাজিবুল আহসান সুমন। সাধারণ সম্পাদক পদে আলোচনায় আছেন জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আবু তৈয়ব, কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সাবেক সদস্য রাশেদ খান মেনন, সীতাকুণ্ড উপজেলা যুবলীগের সহ সভাপতি এস এম আল নোমান, ফটিকছড়ি উপজেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সম্পাদক মুজিবুল হক স্বপন।

Yakub Group

কেন্দ্রীয় যুবলীগ নেতারা জানিয়েছেন যুবলীগের তিন ইউনিটের শীর্ষ পদের জন্য সিভি জমা নেওয়া হলেও নেতৃত্ব নির্বাচন হবে সম্মেলনের মাধ্যমে। মে মাসের শেষ দিকে ধারাবাহিক ভাবে ৩ ইউনিটে সম্মেলন করার বিষয়ে এর মধ্যেই আলোচনা করছে দলটির চট্টগ্রাম বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত নেতারা। প্রাথমিকভাবে ২৭, ২৮,২৯ মে ৩ দিন ৩ ইউনিটের সম্মেলনের কথা আলোচনা হচ্ছে বলেও জানা গেছে। তবে এই বিষয়ে এখনও চূড়ান্ত কোনো সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি। সম্মেলনে এই দফায় সিভি জমা দেওয়া নেতাদের মধ্য থেকেই নেতা নির্বাচন করা হবে।

এক্ষেত্রে সিভি জমা দেওয়ার ক্ষেত্রেও কেন্দ্রীয় যুবলীগের কিছু বেধে দেওয়া নির্দেশন ছিল। যেসব নির্দেশনার কারণে সিভি জমা দিতে গিয়েও ব্যর্থ হয়ে ফেরত আসতে হয়েছে অনেককে। জানা গেছে তিন ইউনিটের আগের কমিটির সদস্য, বিভিন্ন থানা ও উপজেলা ইউনিটের শীর্ষপদের নেতাদের পাশাপাশি আওয়ামী লীগের ভ্রাতৃপ্রতিম সংগঠন ছাত্রলীগের সাবেক কেন্দ্রীয় নেতা ও জেলা ইউনিটের সভাপতি, সাধারণ সম্পাদক, সহ সভাপতি, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও সাংগঠনিক সম্পাদকদের সিভি শুধুমাত্র গ্রহণ করা হয়েছে কেন্দ্রীয় যুবলীগের দপ্তর সেল থেকে। এসবের কোনো একটি পদে থাকা নেতা ছাড়া কারও সিভি গ্রহণ করা হয়নি।

কেন্দ্রীয় যুবলীগের দপ্তর সম্পাদক মোস্তাফিজুর রহমান মাসুদ চট্টগ্রাম প্রতিদিনকে বলেন, ‘চট্টগ্রাম মহানগর ও উত্তর দক্ষিন জেলা যুবলীগের সভাপতি সাধারণ সম্পাদক পদে আমাদের সিভি গ্রহনের সময়সীমা আজ মঙ্গলবার (৫ এপ্রিল) সন্ধ্যা ৬ টায় শেষ হয়েছে। আগামীতে সম্মেলনের মাধ্যমে এই আবেদনকারীদের মধ্য থেকে যুবলীগের নেতা নির্বাচন করা হবে।’

যুবলীগের ৩ ইউনিটের শীর্ষ পদে কাদের সিভি জমা দেওয়ার সুযোগ ছিল— এমন প্রশ্নের জবাবে উপ দপ্তর সম্পাদক মো. দেলোয়ার হোসেন শাহজাদা চট্টগ্রাম প্রতিদিনকে বলেন, ‘যে তিন ইউনিটের জন্য সিভি জমা নেওয়া হয়েছে সে ইউনিটগুলোর আগের কমিটির যেকোন নেতা সিভি জমা দেওয়ার সুযোগ ছিল। থানা ও উপজেলা যুবলীগের কমিটিগুলোর শীর্ষ পদের নেতারা ও ছাত্রলীগের কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক নেতা, জেলা ও নগরের সভাপতি, সাধারণ সম্পাদক, সহ সভাপতি, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও সাংগঠনিক সম্পাদকদের সিভি জমা দেওয়ার সুযোগ ছিল।’

এআরটি/সিপি

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

ksrm