আক্রান্ত
৯৮৮৮
সুস্থ
১১৯৫
মৃত্যু
১৮৯

শিশুসহ করোনায় মৃত আরও ২২, চট্টগ্রামেরই ১০ জন

0
high flow nasal cannula – mobile

দেশে নভেল করোনাভাইরাসে সংক্রমিত প্রথম রোগী শনাক্ত হওয়ার ১০ দিন পর ১৮ মার্চ প্রথম একজনের মৃত্যু হয়। তার ঠিক দুইমাস পর এখন প্রতিদিনই মারা যাচ্ছেন গড়ে ২০ জনের উপর। তারই ধারাবাহিকতায় গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে আরো ২২ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে এ ভাইরাসের সংক্রমণে প্রাণহানির সংখ্যা দাঁড়াল ৫৪৪। এছাড়া একই সময় নতুন করে ১ হাজার ৫৪১ জন করোনাভাইরাসে আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছেন। এ নিয়ে সর্বমোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৩৮ হাজার ২৯২ জনে।

যারা মারা গেছেন তাদের বিশ্লেষণ তুলে ধরে বুধবার (২৭ মে) দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়মিত অনলাইন বুলেটিনে অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক নাসিমা সুলতানা বলেন, মৃত ২২ জনের মধ্যে ২০ পুরুষ এবং দুজন নারী। এদের মধ্যে চট্টগ্রাম বিভাগের রয়েছেন ১০ জন, এছাড়া ঢাকার ১০ জন এবং সিলেট বিভাগের দুজন ছিলেন। হাসপাতালে মারা গেছেন ২১ জন এবং বাড়িতে মারা গেছেন একজন।

তাদের বয়স বিশ্লেষণে জানানো হয়, মারা যাওয়াদের মধ্যে শূন্য থেকে ১০ বছর বয়সসীমার মধ্যে একজন, ২১ থেকে ৩০ বছর বয়সসীমার ছিলেন দুজন, ৩১ থেকে ৪০ বছর বয়সসীমার মধ্যে দুজন, ৪১ থেকে ৫০ বছরের মধ্যে দুজন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে সাতজন, ৬১ থেকে ৭০ বছরের মধ্যে সাতজন এবং ৭১ থেকে ৮০ বছরের বয়সসীমার ছিলেন একজন।

৪৮টি ল্যাবে পিসিআরের মাধ্যমে পরীক্ষার তথ্য তুলে ধরে অনলাইন বুলেটিনে আরও জানানো হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় করোনাভাইরাস শনাক্তে ৭ হাজার ৮৪৩টি নমুনা সংগ্রহ করা হয়। আগের দিনের নমুনাসহ পরীক্ষা করা হয় আট হাজার ১৫টি। এতে পজেটিভ এসেছে ১ হাজার ৫৪১টি। এ নিয়ে এযাবৎ মোট নমুনা পরীক্ষার দাঁড়াল ২ লাখ ৬৬ হাজার ৪৫৬টিতে। আর মোট আক্রান্ত শনাক্ত দাঁড়াল ৩৮ হাজার ২৯২ জন।

অন্যদিকে, চট্টগ্রাম জেলায় মঙ্গলবার (২৬ মে) রাত পর্যন্ত মোট করোনা পজিটিভ শনাক্তের সংখ্যা ১৯৮৫। এরমধ্যে সুস্থ ১৭৯ ও মৃত ৫৮ জন।

এমএহক

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

Manarat

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

আরও পড়ুন
ksrm