লা মেনসা রেস্টুরেন্টে চলছে তিন দিনব্যাপী পিঠা উৎসব, বাহারি পিঠার সমাহার

পিঠা বাঙালির খাদ্য সংস্কৃতিতে একটি অবিচ্ছেদ্য অংশ। শীতকাল এলেই পিঠা উৎসবে মাতোয়ারা হয় দেশবাসী। এই ঋতুটি যেন পিঠা খাওয়ার উপযুক্ত সময়। শীত মানেই মজার মজার সব পিঠা। শীতে পিঠা খায় না এমন কাউকে খুঁজে পাওয়া যাবে না।

এ শীতে নগরবাসীকে মনভোলানো পিঠার স্বাদ দিতে এবং শীতের উৎসবকে আরও রঙিন করতে লা মেনসা চট্টগ্রাম আয়োজন করেছে তিন দিনব্যাপী পিঠা উৎসব। ২১ জানুয়ারি থেকে শুরু হয়ে পিঠা উৎসবটি চলবে ২৩ জানুয়ারি পর্যন্ত।

শনিবার (২১ জানুয়ারি) সন্ধ্যায় বাংলাদেশ টেলিভিশন কেন্দ্রে অবস্থিত ‘লা মেনসা’ রেস্টুরেন্টে পিঠা উৎসব-২০২৩ এর উদ্বোধন করা হয়।

পিঠা উৎসব-২০২৩ এর প্রথম দিনে উদ্বোধক হিসেবে উপস্থিত ছিলেন দৈনিক আজাদী পত্রিকার সম্পাদক এম এ মালেক এবং প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন সাবেক সফল মেয়র ও চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আ.জ.ম. নাছির উদ্দীন এবং বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মফিজুর রহমান।

আরও উপস্থিত ছিলেন লা মেনসা রেস্টুরেন্টের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. আক্কাস উদ্দীন।

পিঠা উৎসবে থাকছে পিঠার নানা বিলাসী ও বাহারি আয়োজন। চিতোই পিঠা, পাটিসাপটা, পুলিপিঠা, নকশি পিঠা, তেলে পিঠা, দুধ খেজুর, মুগ শোলা, গোলাপ পিঠা, লবঙ্গ লতিকা, সেউই পিঠা, বাদশাহী পিঠা, রসমঞ্জুরি,ভাপা পুলি, ঝাল পান্তুয়া,কাটা পিঠা, নকশি পিঠা, পুলি পিঠা, দুধ পিঠা, পাকানো পিঠা, পাকোয়ান পিঠা, পক্কন পিঠা, পাটিসাপটা, কুশলি পিঠাসহ হরেক রকমের দেশীয় পিঠার সমাহার।

Yakub Group

এ আয়োজন নিয়ে লা মেনসা রেস্টুরেন্টের ব্যবস্থাপনা পরিচালক মো. আক্কাস উদ্দীন বলেন, ‘কুয়াশাচ্ছন্ন সকালে কিংবা সন্ধ্যার হিমেল বাতাসে মৌ মৌ করা নানা রকম পিঠার স্বাদ নেওয়া ভোজনরসিক বাঙালির ঐতিহ্যের অংশ। পিঠা বাঙালির খাদ্য সংস্কৃতিতে একটি অবিচ্ছেদ্য অংশ। শীত মানেই পিঠা উৎসব। পুরো বছরজুড়েই পিঠা তৈরি হয়। তবে পিঠা তৈরি ও খাওয়ার উপযুক্ত সময় শীতকাল। ব্যস্ত শহরবাসীর জন্য পিঠা বানানো বেশ কষ্টসাধ্য ও সময় সাপেক্ষ ব্যাপার। নগরবাসী ও নতুন প্রজন্মের কথা চিন্তা করেই আমরা এই উৎসবের আয়োজন করেছি। যাতে তারা ঐতিহ্যবাহী দেশীয় পিঠার অতুলনীয় স্বাদ উপভোগ করতে পারেন।’

তিনি আরও বলেন, ‘নতুন প্রজন্মের কাছে অনেক পিঠাই অজানা অচেনা। তাই নতুন প্রজন্মের কাছে পিঠার পরিচিতি ও স্বাদ উপভোগের সুযোগ তৈরী করে দেয়ার জন্য আমাদের এই আয়োজন। উৎসবে আগত প্রত্যেক অতিথি পিঠার স্বাদ উপভোগ করতে পারবেন।’

এমএফও

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

ksrm