আক্রান্ত
২৫৮৮
সুস্থ
২০৫
মৃত্যু
৭২

লকডাউন আগ্রাবাদের তিন তলা বাড়ি

0

এবার চট্টগ্রাম নগরীতে করোনাভাইরাস আক্রান্ত ব্যক্তির সংস্পর্শে আসা ব্যক্তির আরও এক আত্মীয়ের বাড়ি লকডাউন করেছে প্রশাসন। শনিবার (৪ এপ্রিল) নগরীর ডবলমুরিং থানার আগ্রাবাদ উত্তর পাঠানটুলি ওয়ার্ডে চাঁন মিয়ার বিল এলাকার একটি তিনতলা বাড়ি স্থানীয় প্রশাসন লকডাউন করেছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে ডবলমুরিং থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সদীপ চন্দ্র দাশ চট্টগ্রাম প্রতিদিনকে বলেন, ‘পাঠানটুলিতে লকডাউন করা বাড়ির সবাই দামপাড়ায় যে ব্যক্তির শরীরে করোনাভাইরাসের আলামত পাওয়া গেছে তার আত্মীয়। এদের কেউ কেউ ওই ব্যক্তির সংস্পর্শে এসেছিলেন বলে আমরা তথ্য পেয়েছি। তাই বাড়িটি লকডাউন করা হয়েছে।’

স্থানীয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর মোহাম্মদ জাবেদ বলেন, ‘লকডাউন হওয়া বাড়ির মালিক করোনা আক্রান্ত ব্যক্তির ভায়রা হন সম্পর্কে। অসুস্থতার কথা শুনে তারা দামপাড়ায় গিয়েছিলেন আক্রান্ত ব্যক্তিকে দেখতে। এছাড়াও তারা আক্রান্ত ব্যক্তিকে দেখতে ন্যাশনাল হাসপাতালেও গেছেন বলে প্রশাসনের কাছে তথ্য রয়েছে। তাই প্রশাসন বাড়িটি লকডাউন করেছে।’

প্রসঙ্গত, শুক্রবার চট্টগ্রাম জেনারেল হাসপাতালে চিকিৎসাধীন একরোগীর করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়। তার মেয়ে এবং মেয়ের শ্বাশুড়ি ১২ মার্চ সৌদিআবর থেকে ওমরা হজ পালন করে এসেছেন। করোনা শনাক্ত হওয়ার পর দামাপাড়ার ৬টি, চন্দনাইশে আরেক নিকট আত্মীয়ের বাড়ি এবং সাতকানিয়ায় মেয়ের শ্বশুর বাড়ি লকডাউন করা হয় রাতেই। এ নিয়ে একই ঘটনায় ৮টি বাড়ি লকডাউন হলো। ওই ব্যক্তিকে চিকিৎসা সুবিধা দিয়ে নগরীর মেহেদীবাগের ন্যাশনাল হসপিটালের প্রায় ২৪ জন চিকিৎসক, স্টাফ হোম কোয়ারেন্টাইনে আছেন।

এফএম/এমএফও

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

Manarat

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

আরও পড়ুন

পিপিই-মাস্ক মানসম্মত কিনা সেই প্রশ্নও উঠছে

জটিল হচ্ছে লড়াই, করোনার থাবায় চট্টগ্রামের ১৯ চিকিৎসক

নারীদের তুলনায় ৫ গুণ বেশি পুরুষ আক্রান্ত

২১ থেকে ৪০— চট্টগ্রামে তরুণরাই করোনার সহজ শিকার

ksrm