রামুতে হাত-পা কেটে প্রবাসীকে মারলো সন্ত্রাসীরা

0

কক্সবাজারের রামুতে মাহমুদুল হক নামের ৪০ বছর বয়সী এক প্রবাসীকে কুপিয়ে হত্যা করেছে সন্ত্রাসীরা। মঙ্গলবার (১৪ জানুয়ারি) বিকাল সাড়ে ৫টায় দক্ষিণ মিঠাছড়ির উমখালী জিনির ঘোনায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত মাহমুদুল দক্ষিণ মিঠাছড়ির পানের ছড়ার গোলাম হোছনের ছেলে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, মাহমুদুল হক ৪ মাস আগে সৌদি আরব থেকে দেশে আসেন। দেশে এসেই উমখালী জিনির ঘোনায় কিছু জমি কিনেন। কিন্তু সেই জমির উপর দৃষ্টি পড়ে ওই এলাকার হাজী সোলেমানের ছেলে সুলতান আহমদ, তার ছেলে মোস্তফার। তারা বিভিন্ন সময় প্রবাসী মাহমুদুল হককে হত্যার হুমকি-ধমকি দিয়ে আসছে।

সর্বশেষ মঙ্গলবার বিকালে প্রবাসী মাহমুদুল হক জিনির ঘোনায় তার জমি দেখতে গেলে সুলতান আহমদ ও তার ছেলে মোস্তফার নেতৃত্বে একদল সন্ত্রাসী তাকে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে মারাত্মক জখম করে। এক পর্যায়ে সন্ত্রাসীরা প্রবাসী মাহমুদুল হকের দুই পা ও দুই হাত শরীর থেকে বিচ্ছিন্ন করে ফেলে।

এছাড়া শরীর বিভিন্ন স্থানে ধারালো দা ও কিরিচ দিয়ে কুপিয়ে থেঁতলে দেয়। পরে সন্ত্রাসীরা ওই প্রবাসীর মৃত্যু নিশ্চিত করে ঘটনাস্থল ত্যাগ করে।

স্থানীয়রা মাহমুদুল হককে উদ্ধার করে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক জানান হাসপাতালে আনার আগে তার মৃত্যু হয়েছে। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত (রাত ৮টা) বর্তমানে তার লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে রাখা হয়েছে।

এ ব্যাপারে রামু থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. আবুল খায়ের বলেন, ‘ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। হত্যাকারীরা পার পাবে না। শিগগরই তাদের আইনের আওতায় আনা হবে।’

পারিবারিক সূত্র জানায়, ১৯ জানুয়ারি নিহত প্রবাসী মাহমুদুল হক আবারও সৌদি আরবে ফিরে যাওয়ার কথা ছিল।

এএইচ

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

আরও পড়ুন