আক্রান্ত
১১৪৯০
সুস্থ
১৩৫৫
মৃত্যু
২১৬

রাঙ্গুনিয়ায় সন্ত্রাসী ওসমান গুলিবিদ্ধ, ১০ ঘন্টায়ও চিকিৎসা শুরু হয়নি চমেক হাসপাতালে

0
high flow nasal cannula – mobile

চট্টগ্রামের রাঙ্গুনিয়ায় দুর্বৃত্তের হামলায় মো. ওসমান (৩০) নামে পুলিশের তালিকাভুক্ত সন্ত্রাসী গুলিবিদ্ধ হয়েছেন। ঘটনার পর শনিবার (৩১ আগস্ট) সকাল ৭ টায় ওসমানকে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে আনা হলেও বিকেল ৫টায় এই রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত গুলিবিদ্ধ ওসমানের চিকিৎসা শুরু করা হয়নি।

পুলিশ বলছে, গুলিবিদ্ধ ওসমানের আত্মীয়স্বজন কাউকে পাওয়া যাচ্ছে না। অপারেশনে তার জন্য দুই ব্যাগ রক্তে প্রয়োজন। রক্ত জোগাড় হলেও অপারেশন থিয়েটারে (ওটি) স্বাক্ষর ছাড়া তাকে অপারেশন করা যাচ্ছে না। শনিবার (৩১ আগস্ট) ভোরে উপজেলা ফরেস্ট অফিসের সামনে মো. ওসমান গুলিবিদ্ধ হন। ওসমান রাঙ্গুনিয়া থানার তিন মামলায় ওয়ারেন্টভুক্ত আসামি।

মো. ওসমান একই উপজেলার সফরভাটা এলাকার আবুল কালামের পুত্র। খবর পেয়ে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে রাঙ্গুনিয়া থানার পুলিশ ওসমানকে পাহারায় রেখেছে। সুস্থ হওয়ার পর তাকে গ্রেপ্তার করা হবে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পুলিশ ফাঁড়ির এএসআই আলাউদ্দিন তালুকদার চিকিৎসকের বরাত দিয়ে চট্টগ্রাম প্রতিদিনকে বলেন, শনিবার ৭টার দিকে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় ওসমানকে চমেক হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। তার কোমরে গুলি লেগেছে। তার অবস্থা খুবই গুরুতর। সময়মতো অপারেশন করতে না পারলে তাকে বাঁচানো অনেক কঠিক হবে। বর্তমানে তাকে ক্যাজুয়ালটি ওয়ার্ডে রাখা হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, বিকেল ৫টা পর্যন্ত ওসমানের কোন আত্মীয়স্বজন হাসপাতালে আসেনি। নিয়ম অনুসারে অপারেশন করার আগে স্বাক্ষর দিতে হয়। তার পক্ষে কেউ স্বাক্ষর দিতে না আসায় অপারেশন করা যাচ্ছে না। ওসমানকে বর্তমানে পুলিশ পাহারায় রাখা হয়েছে বলে জানান তিনি।

বিষয়টি নিশ্চিত করে রাঙ্গুনিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) ইমতিয়াজ মো. আহসানুল কাদের ভূঁইয়া বলেন, সকালে রাঙ্গুনিয়া সন্ত্রাসী ওসমান প্রতিপক্ষের হামলায় গুলিবিদ্ধ হয়ে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। খবর পেয়ে রাঙ্গুনিয়া থানার পুলিশ হাসপাতালে গিয়ে তাকে পাহারায় রেখেছে। সুস্থ হওয়ার পর তাকে গ্রেফতার করা হবে বলে জানান তিনি।

আজাদ/সিপি

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

Manarat

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

আরও পড়ুন
ksrm