রাঙামাটির ২ ক্লাবের নিবন্ধন বাতিল চেয়ে স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতার মামলা

জেলা ক্রীড়া সংস্থাকে কারণ দর্শানোর নির্দেশ আদালতের

রাঙামাটি মুক্তিযোদ্ধা ক্রীড়া চক্র ও ডাইনামিক ফুটবল একাডেমি নামে দুটি ক্লাব নিবন্ধন দেওয়ায় জেলা ক্রীড়া সংস্থার বিরুদ্ধে মামলার আবেদন করেছেন জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগ সভাপতি শাওয়াল উদ্দিন।

গত ১ সেপ্টেম্বরের আবেদনে নিয়ম ‘বহির্ভূতভাবে’ নিবন্ধন করা হয়েছে জানিয়ে রাঙামাটির যুগ্ম জেলা জজ আদালতে জেলা ক্রীড়া সংস্থা ও সংস্থার সাধারণ সম্পাদকের বিরুদ্ধে মামলার আবেদন করা হয়।

এদিকে গত ১৮ সেপ্টেম্বর যুগ্ম জেলা জজ আদালত বিবাদিদের নোটিশ পাওয়ার সাতদিনের মধ্যে কারণ দর্শাতে নির্দেশ দিয়েছেন। পদাধিকার বলে জেলা ক্রীড়া সংস্থার সভাপতি জেলা প্রশাসক মো. মিজানুর রহমান এবং সাধারণ সম্পাদক হলেন মো. শফিউল আজম। মামলার বাদি হিসেবে রয়েছেন নবীন সংঘ ক্লাব ও ক্লাব সভাপতি শাওয়াল উদ্দিন।

মামলার আবেদনে উল্লেখ করা হয়, জেলা ক্রীড়া সংস্থার কার্যনির্বাহী পরিষদের আট সভা, যা খুব দ্রুততার সঙ্গে গত ২৬ জুলাই আহ্বান করা হয়। ওই সভায় তারা ক্লাব রেজিস্ট্রেশন সংক্রান্ত আলোচনা বিষয়ে সহ-সভাপতি জানান, ক্লাব রেজিস্ট্রেশন ও সুপারিশ প্রণয়ন উপকমিটি কর্তৃক সভা আহ্বানের মাধ্যমে প্রাপ্ত আবেদনসমূহ স্থানীয় ক্রীড়া সংস্থার গঠনতন্ত্রের অনুচ্ছেদ-৭ অনুযায়ী যাচাই-বাছাই করে দেখা যায়, দুটি ক্লাব নির্ধারিত সময়ে সকল শর্ত পূরণ করেছে এবং বাকি ৬টি ক্লাব নির্ধারিত সময়ে আবেদন করতে ব্যর্থ হয়। যেহেতু রাঙামাটি মুক্তিযোদ্ধা ক্রীড়া চক্র এবং ডাইনামিক ফুটবল একাডেমি যথাসময়ে সকল শর্তপূরণ করেছে সেহেতু ওই দুটি ক্লাবকে রেজিস্ট্রেশন দেওয়ার জন্য কার্যনির্বাহী পরিষদের পরবর্তী সভায় সুপারিশ করা হয়।

কিন্তু বিগত সভায় এই বিষয়টি সঠিকভাবে উপস্থাপন করা যায়নি। তাদের রেজিস্ট্রেশন প্রদানের বিষয়টি পুনর্বিবেচনার অনুরোধ করা হয়।

আরও উল্লেখ করা হয়, সভায় বিস্তারিত আলাপ-আলোচনার পর সাধারণ সম্পাদক ও মামলার ২ নম্বর বিবাদি ওই আলোচ্য বিষয়ের সিদ্ধান্ত জানান যে, জাতীয় ক্রীড়া পরিষদ এবং স্থানীয় ক্রীড়া সংস্থার গঠনতন্ত্রের অনুচ্ছেদ-৭ অনুযায়ী রাঙামাটি মুক্তিযোদ্ধা ক্রীড়া চক্র ও ডাইনামিক একাডেমি সকল শর্তপূরণ করায় এবং ক্লাব রেজিস্ট্রেশন ও সুপারিশ প্রণয়ন উপকমিটির সুপারিশক্রমে ক্লাব দুটিকে রেজিস্ট্রেশন প্রদানে সবার সম্মতিতে সিদ্ধান্ত হয়।

Yakub Group

ক্লাব রেজিস্ট্রেশন ও সুপারিশমালা প্রণয়ন উপকমিটি অতিরিক্ত জেলা প্রশাসককে (সার্বিক) আহ্বায়ক করা হয় এবং উপকমিটি জেলা ক্রীড়া সংস্থার রেজিস্ট্রেশন পাওয়ার জন্য মামলার বাদি নবীন সংঘ ক্লাবসহ ৮টি ক্লাবের আবেদন জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের গঠনতন্ত্রের ৭.১ এর আলোকে যাচাই করেন এবং উপকমিটি প্রস্তাব করেন যে, জাতীয় ক্রীড়া পরিষদের গঠনতন্ত্রের অনুচ্ছেদ ৭.১ যথাযথ পূরণ করায় এবং সাধারণ পরিষদের মেয়াদ উত্তীর্ণের এক বছরের মধ্যে আবেদনকারী আট ক্লাব হতে ছয়টি নির্ধারিত সময়ের মধ্যে আবেদন করতে ব্যর্থ হয়। শুধুমাত্র দুটি ক্লাব সকল শর্তপূরণ করেছে বিধায় রেজিস্ট্রেশন উপকমিটির সকলের একমত পোষণ করেন এবং কার্যনির্বাহী পরিষদের সভায় পাঠানোর সিদ্ধান্ত হয়।

এ প্রক্রিয়ায় জেলা ক্রীড়া সংস্থার রেজিস্ট্রেশন পাওয়ায় জন্য নবীন সংঘ ক্লাবসহ আট ক্লাবের আবেদনসমূহ সমভাবে বা ন্যায়পরভাবে বিবেচনা না করে জেলা ক্রীড়া সংস্থার কার্যনির্বাহী পরিষদ গঠনতন্ত্রের অনুচ্ছেদ-৭ তথা এ্যাফিলিয়ন, বিষয়ক অনুচ্ছেদ ৭.১ অনুচ্ছেদের ব্যত্যয় ঘটিয়েছেন এবং ওই অনুচ্ছেদ লঙ্ঘন করেছে বলে আবেদনে উল্লেখ করা হয়।

আবেদনে জেলা ক্রীড়া সংস্থা কার্যনির্বাহী কমিটির ৮ম সভার ক্লাব রেজিস্ট্রেশন ও ক্লাব এ্যাফিয়েলেশন সংক্রান্ত সিদ্ধান্ত বাতিল এবং মামলা শেষ না হওয়া পর্যন্ত ক্লাব দুটির নিবন্ধন অস্থায়ীভাবে স্থগিত রাখার দাবি করা হয়েছে।

এদিকে আদালত মামলা পর্যালোচনা করে বিবাদিদের বিরুদ্ধে কেন অস্থায়ী নিষেধাজ্ঞা আদেশ করা হবে না, তা নোটিশপ্রাপ্তির সাতদিনের মধ্যে দিতে নির্দেশ দিয়েছেন যুগ্ম জেলা জজ আদালত। গত ১৮ সেপ্টেম্বর এ নোটিশ জারি করা হয়।

এ প্রসঙ্গে জানতে চাইলে রাঙামাটি জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক মো. শফিউল আজম বলেন, ‘ক্লাব নিবন্ধন উপকমিটি আবেদনকৃত সকল ক্লাবের কাগজপত্র যাচাই-বাচাই করে দুটি ক্লাবের সকল কিছু সঠিকভাবে পেয়েছে বলে মতামত দেন। পরবর্তীতে কার্যনির্বাহী কমিটির সকল সদস্যের মতামতের ভিত্তিতে আট ক্লাবের মধ্য দুটি ক্লাবের রেজিস্ট্রেশন দেওয়া হয়েছে। নিয়ম মেনেই সবকিছু করা হয়েছে। আদালতকে আমরা আমাদের জবাব দেব। এরপর আদালত যে সিদ্ধান্ত দেবেন, তাই মেনে নেব।’

ডিজে

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

ksrm