রাঙামাটিতে পাহাড়ি-বাঙালি পাল্টাপাল্টি ধাওয়া, আহত ৮

0

জমি দখল নিয়ে রাঙামাটির নানিয়ারচরে পাহাড়ি ও বাঙালিদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এতে এক নারীসহ ৮ জন আহত হয়েছেন। আহতরা হলেন মো. ওহেদুল আলম (৩২), মো. খোকন (৩১), মো. সাইফুল আলম (৪৫), মো. সেলিম (৩৮), পান্না বেগম (২৮), আনন্দ মোহন চাকমা (৪০), ইসলাম মাঝি (৫০) ও নাসির বাবু (৩০)।

মঙ্গলবার (১১ ফেব্রুয়ারি) সকাল ও দুপরের দিকে বেতছড়ি দ্বিচানপাড়া ১৭ মাইল এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় সাম্প্রদায়িক উত্তেজনা বিরাজ করছে। মুখোমুখি অবস্থানে উভয় সম্প্রদায়ের স্থানীয়রা। ফলে আতংকে আছে সাধারণ মানুষ। পাহাড়িদের অনেকে বাড়িঘর ছেড়ে নিরাপদে পালিয়েছে। তবে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এলাকায় কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে বলে জানিয়েছে প্রশাসন।

স্থানীয়রা জানান, ওই এলাকায় কয়েক দিন ধরে পাহাড়ি-বাঙালির মধ্যে বিরোধ চলছে। পাহাড়িদের জায়গা দখল করে বাড়িঘর নির্মাণসহ চাষাবাদের চেষ্টা করছিলেন স্থানীয় বাঙালিরা। এতে বাধা দিতে যায় পাহাড়িরা। পরে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর হস্তক্ষেপে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে।

প্রসঙ্গত, ২০১৪ সালে নানিয়াচরের বগাছড়িতে জমি বেদখলকে কেন্দ্র করে পাহাড়ি গ্রামে হামলা ও ঘরবাড়িতে অগ্নিসংযোগ করা হয়েছিল। ওই ঘটনার পুনরাবৃত্তির আশঙ্কা করছেন স্থানীয়রা। পরিস্থিতির স্থিতিশীলতা ফেরাতে উভয় পক্ষের মধ্যে সমঝোতার চেষ্টা করছে স্থানীয় প্রশাসন।

জেলা প্রশাসক একেএম মামুনুর রশিদ বলেন, ‌‌‘সকালে উভয় পক্ষের মধ্যে হালকা ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার খবর পাওয়া গেছে। বর্তমানে পরিস্থিতি শান্ত রয়েছে। স্থানীয় প্রশাসন ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনী এলাকায় অবস্থান নিয়েছে। সেখানে কঠোর নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা হয়েছে।’

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. ছুফিউল্লাহ বলেন, ‘বর্তমানে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর টহল জোরদার করা হয়েছে।’

এএইচ

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

আরও পড়ুন