মেম্বার প্রার্থীর পক্ষে কাজ না করায় পটিয়ায় হামলা, থানায় মামলা

0

চট্টগ্রামের পটিয়া উপজেলার কুসুমপুরা ইউনিয়নের সদ্য সমাপ্ত চতুর্থ ধাপের ইউপি নির্বাচনে মেম্বার প্রার্থীর পক্ষে কাজ না করায় এক যুবককে ছুরিকাঘাত করে গুরুতর আহত করে ওই প্রার্থী ও তার সমর্থকেরা।

জানা যায়, ইউনিয়নের থানামহিরা ৩ নম্বর ওয়ার্ডের মেম্বার প্রার্থী হাজী আলমকে (ফুটবল প্রতীক) এ ঘটনার জন্য দায়ী করা হচ্ছে। আহত যুবক স্থানীয় এখলাছুর রহমানের পুত্র নাঈম উদ্দিন (৩৫)। ঘটনার পর স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে প্রথমে পটিয়া স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করালেও পরে অবস্থার অবনতি হলে তাকে চমেক হাসপাতালে নেয়া হয়। তার মাথায় ৭টি সেলাই হয়েছে।

এ ঘটনায় আহতের বড়ভাই নাজিম উদ্দিন বাদী হয়ে মেম্বার প্রার্থী হাজী আলমকে প্রধান আসামি করে ১২ জনকে এজাহার নামীয় ও ২০/২৫ কে অজ্ঞাতনামা আসামি করে পটিয়া থানায় মঙ্গলবার রাতে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।

ঘটনার বিবরনে আরো জানা যায়, ২৬ ডিসেম্বর চতুর্থ ধাপের ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনের রাতে থানামহিরা গ্রামে ভোট চলার সময় এই হামলার ঘটনা ঘটে।

মালার বাদী নাজিম উদ্দিন জানান, আমার ভাই ইউপি নিবার্চন চলাকালীন থানামহিরা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে নৌকা প্রতীকের এজেন্ট ছিল। আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী চেয়ারম্যান প্রার্থী নুরুল রশিদ চৌধুরী এজাজের অনুসারী ৩ নম্বর ওয়ার্ডের মেম্বার প্রার্থী হাজী আলম তার পক্ষে কাজ না করার অভিযোগ তুলে ভাইয়ের উপর হামলা চালিয়েছে।

এ ব্যাপারে পরাজিত ইউপি মেম্বার প্রার্থী হাজী আলমের ব্যক্তিগত মোবাইলে একাধিকবার যোগাযোগ করার পরও তাকে পাওয়া যায়নি।

পটিয়া থানার ওসি (তদন্ত) রাশেদুল ইসলাম জানান, এ ঘটনায় মঙ্গলবার রাতে থানায় একটি মামলা হয়েছে। ঘটনা তদন্ত করে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এমএহক

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm