আক্রান্ত
১১৩৮৫
সুস্থ
১৩৪০
মৃত্যু
২১৪

মৃত্যুর নামতায় চট্টগ্রাম এই প্রথম ঢাকার ওপরে

0
high flow nasal cannula – mobile

করোনাভাইরাসে আক্রান্ত ও মৃত্যুর হিসাবে এতোদিন এগিয়ে ছিল ঢাকা। কিন্তু এই প্রথম ঢাকাকে পেছনে ফেলে এগিয়ে গেল চট্টগ্রাম। শুধু ঢাকা নয়, মৃত্যুর হিসাবে চট্টগ্রাম বিভাগ মঙ্গলবার (২ জুন) ছিল সারা দেশেই শীর্ষে।

মঙ্গলবার (২ জুন) স্বাস্থ্য অধিদফতরের সর্বশেষ স্বাস্থ্য বুলেটিনে দেওয়া তথ্য অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু হওয়া ৩৭ জন করোনা রোগীর ১৫ জনই চট্টগ্রাম বিভাগের। অন্যদিকে ঢাকা বিভাগে মৃত্যু হয়েছে ১০ জনের, সিলেট বিভাগে চারজনের, বরিশাল বিভাগে তিনজনের, রংপুর ও রাজশাহী বিভাগে দুজন করে এবং ময়মনসিংহ বিভাগে মারা গেছেন একজন।

তবে সর্বোচ্চসংখ্যক আক্রান্ত ও মৃত্যুর দিক থেকে দেশের আটটি বিভাগের মধ্যে ঢাকা এখনও প্রথম স্থানে থাকলেও আক্রান্ত ও মৃত্যুঝুঁকির তালিকায় বিস্ময়কর দ্রুতগতিতে দ্বিতীয় স্থানে উঠে এসেছে চট্টগ্রাম।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের সর্বশেষ পরিসংখ্যান অনুসারে, রাজধানীসহ সারাদেশে মঙ্গলবার (২ জুন) পর্যন্ত করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করেছেন মোট ৭০৯ জন। এর মধ্যে রাজধানী ঢাকায় সর্বোচ্চ ২৩৩ জন (৩২ দশমিক ৮৬ শতাংশ), ঢাকা বিভাগে ২০১ জন (২৮ দশমিক ৩৪ শতাংশ) এবং চট্টগ্রাম বিভাগে তৃতীয় সর্বোচ্চ ১৮৪ জন (২৫ দশমিক ৯৫ শতাংশ) মৃত্যুবরণ করেছেন।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের হিসাব অনুযায়ী, বর্তমানে সরকারি ও বেসরকারি পর্যায়ে সারাদেশে মোট ৫২টি ল্যাবে করোনাভাইরাস শনাক্ত করার পরীক্ষায় দিনে ১১ হাজার থেকে ১২ হাজারেরও বেশি নমুনা পরীক্ষা হচ্ছে। সারা দেশে করোনারোগীদের চিকিৎসার জন্য মোট ১৩ হাজার ৯৮৪টি বেড প্রস্তুত রয়েছে। এর মধ্যে রাজধানী ঢাকায় সাত হাজার ২৫০টি, ঢাকা বিভাগে এক হাজার ৩৯৬টি, চট্টগ্রাম বিভাগে এক হাজার ১৩৮টি, ময়মনসিংহ বিভাগে এক হাজার ৮০টি, বরিশাল বিভাগে ৪১৩টি, সিলেট বিভাগে ৩৪৮টি, রাজশাহী বিভাগে ৯২৪টি, খুলনা বিভাগে ৭১৩টি এবং রংপুর বিভাগে ৭২২টি বেড রয়েছে।

মঙ্গলবার (২ জুন) পর্যন্ত করোনা শনাক্ত মোট রোগীর সংখ্যা ৫২ হাজার ৪৪৫ জন।

সিপি

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

Manarat

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

আরও পড়ুন
ksrm