s alam cement
আক্রান্ত
৫৫৯৮১
সুস্থ
৪৭৮৬৭
মৃত্যু
৬৫৭

মহেশখালীর গভীর সাগরে ট্রলার ডুবে ২ জেলে নিখোঁজ, তীরে ফিরেছেন ৮ জেলে

0

কক্সবাজারের মহেশখালী চ্যানেল সোনাদিয়ার পশ্চিমে সাগরে ভলগেটের ধাক্কায় একটি ফিশিং ট্রলার ডুবে গিয়ে দুই জেলে নিখোঁজ হয়ে গেছেন। তবে ওই ট্রলারের আট জেলেকে উদ্ধার করা হয়েছে। ফিশিং ট্রলারটি সাগরের পানিতে পুরোপুরি ডুবে যায়।

বুধবার (১৮ নভেম্বর) রাত ১১টার দিকে মহেশখালী চ্যানেলের পশ্চিম বঙ্গোপসাগরের নয় বিয়া নামক স্থানে ট্রলারডুবির এই ঘটনা ঘটে। বর্তমান সময়ে সোনাদিয়ার পশ্চিমে দ্রুতগতির ভলগেট ও মালবাহী কার্গো যাতায়াতের কারণে মহেশখালীর ফিশিং ট্রলারের মাঝিমাল্লারা জীবনের চরম ঝুঁকিতে রয়েছেন।

জানা গেছে, ভলগেটের ধাক্কায় ফিশিং ট্রলারটি ডুবে যাওয়ার পর জেলেরা সাগরে প্রায় তিন ঘন্টা পর জেলেদের উদ্ধার করা হয়। উদ্ধার হওয়া জেলেদের প্রায় সকলেই সোনাদিয়ার পূর্ব পাড়ার বাসিন্দা বলে জানা গেছে।

এই ঘটনায় নিখোঁজ জেলেরা হলেন সোনাদিয়া পূর্ব পাড়ার বাসিন্দা মৃত খুলু মিয়ার পুত্র শামসুল আলম পুতু মিয়া এবং মোহাম্মদ মিয়ার পুত্র মোকারম।

উদ্ধার হওয়া জেলেরা জানান, সোনাদিয়ার পূর্ব পাড়া গ্রামের মোহাম্মদ করিমের মালিকানাধীন ‘এফ বি মায়ের দোয়া’ নামক ফিশিং ট্রলারটি ১০ মাঝি মাল্লা নিয়ে বঙ্গোপসাগরে জাল পেতে মাছ আহরণ করছিল। এর মধ্যে হঠাৎ মহেশখালী মাতারবাড়ী কয়লা বিদ্যুৎ কেন্দ্রের উন্নয়ন কাজে সরঞ্জাম সরবরাহ কাজে নিয়োজিত একটি ভলগেট ফিশিং ট্রলারটিকে সজোরে ধাক্কা দিলে মুহূর্তের মধ্যে ফিশিং ট্রলারটি সাগরের পানিতে ডুবে যায়।

জেলেরা জানান, ফিশিং ট্রলারে থাকা মাঝি মাল্লারা গভীর সাগরে ভাসতে থাকা অবস্থায় অপর একটি ফিশিং ট্রলার আট জেলেকে উদ্ধার করে।

Din Mohammed Convention Hall

উদ্ধার করা ফিশিং ট্রলারটি তীরে ফিরে এলে ট্রলার মালিক মোহাম্মদ করিম তার ফিশিংট্রলার টি ভলগেটের ধাক্কায় সাগরে ডুবে যাওয়ার সংবাদ পান বুধবার (১৮ নভেম্বর) দিবাগত রাত তিনটায়।

জানা গেছে, ধাক্কা দেওয়া ভলগেটটি দ্রুত ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়। এখনও সেই ভলগেটের মালিক কে, সেই ব্যাপারে সঠিক কোন তথ্য পাওয়া যায়নি।

উদ্ধার হওয়া জেলেরা হলেন— সোনাদিয়া পূর্ব পাড়া গ্রামের আবুল কাসেমের পুত্র জয়নাল মাঝি, রুহুল আমিনের পুত্র নেছার আহমদ, শামসুল আলমের পুত্র হেলাল উদ্দিন, রহমত আলীর পুত্র মো. ইউনুছ, মো. শরীফের পুত্র হেলাল উদ্দিন ও নুরুল ইসলাম, কালা মনুর পুত্র শাহাজান, মাহাবুব আলম এবং আব্দুল গফুর।

১৯ নভেম্বর সোনাদিয়া পূর্বপাড়ার আব্দুর রহমানের পুত্র মো. করিম বাদি হয়ে দুই জেলেসহ ফিশিং বোট নিখোঁজের বিষয়ে মহেশখালী থানায় সাধারণ ডায়েরি দায়ের করেছেন।

মহেশখালীর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মাহফুজুর রহমান জানান, ভলগেটের ধাক্কায় ট্রলার ডুবিতে দুই জেলে নিখোঁজের সংবাদ পেয়ে নৌ বাহিনী ও কোস্টগার্ডকে অবহিত করার পর উদ্ধারের জন্য কাজ চলছে।

সিপি

ManaratResponsive

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm