s alam cement
আক্রান্ত
৩৫১০৮
সুস্থ
৩২২৫০
মৃত্যু
৩৭১

ভোটের বিরোধে পক্ষ নিচ্ছে ডবলমুরিং ও সদরঘাটের পুলিশ, অভিযোগ কাউন্সিলরপ্রার্থীর

কাদেরের কর্মী-সমর্থকদের দিনরাত হয়রানি

0

চট্টগ্রামের ২৮ নম্বর পাঠানটুলী ওয়ার্ডে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী ও সাবেক কাউন্সিলর আব্দুল কাদেরের কর্মী সমর্থকদের প্রশাসনিক হয়রানি করছে ডবলমুরিং থানার পুলিশ। অন্যদিকে সদরঘাট থানার পুলিশ ওয়ারেন্ট কিংবা মামলা ছাড়াই কাদেরের এক সমর্থককে ধরে নিয়ে গেছে।

এমন অভিযোগ করা হয়েছে কাদেরের পরিবারের পক্ষ থেকে। পুলিশ জামিনে থাকা কাদেরের অনুসারীদের বাড়িতে গিয়ে হুমকি দিচ্ছে। পুলিশের বিরুদ্ধে ভয়ভীতি দেখানো ও মামলা ছাড়াও বাড়ি থেকে ধরে নিয়ে যাওয়ার অভিযোগ করছেন কাদের সমর্থক নেতাকর্মীরা।

গত ১৮ জানুয়ারি কোতোয়ালী থানার ওসি মোহাম্মদ মহসীনকে বদলি করে আনা হয় ডবলমুরিং থানার ওসি হিসেবে।

সম্প্রতি পাঠানটুলীর বাবুল হত্যা মামলায় কাউন্সিলরপ্রার্থী কাদেরের ৫ অনুসারীকে জামিন দিয়েছেন হাইকোর্ট। হাইকোর্টের আদেশে জামিনে থাকা এই ৫ জন হলেন পাঠানটুলী ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুর রহিম রাজু, যুবলীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আলমগীর চৌধুরী আলো, সদস্য আব্দুল ওয়াদুদ রিপন, মো. আলমগীর ও আব্দুন নবী।

অভিযোগে জানা গেছে, শনিবার (২৩ জানুয়ারি) রাতে ডবলমুরিং থানার একজন এসআইয়ের নেতৃত্বে কাদের সমর্থক নেতাকর্মীদের ঘরে ঘরে গিয়ে নির্বাচনী কার্যক্রমে না জড়াতে হুঁশিয়ার করে এসেছে। কাদেরের পরিবার এমন অভিযোগ এনে বলছে, তাদের সমর্থকের মনোবল ভেঙ্গে দিতে ও তাদের মাঝে আতংক ছড়াতে পরিকল্পিতভাবে এসব করা হচ্ছে।

Din Mohammed Convention Hall

প্রসঙ্গত বাবুল হত্যামামলায় গ্রেপ্তার হয়ে ১২ জানুয়ারি থেকে কারাগারে আছেন সাবেক কাউন্সিলর কাদের। এর পর থেকে কার্যত বন্ধ ছিল কাদেরের নির্বাচনী প্রচার। তবে দুদিন আগে কাদেরের পক্ষে তার স্ত্রী নুসরাত জাহান প্রচারণা শুরু করার পর থেকে এসব হয়রানি শুরু হয়েছে বলে অভিযোগ তাদের।

এদিকে জামিনে থাকা কাদেরের সমর্থকদের বাড়িতে পুলিশ পাঠানোর বিষয়ে জানতে চাইলে এটিকে আইন শৃংখলা পরিস্থিতি ঠিক রাখতে পুলিশের রুটিন কার্যক্রমের অংশ উল্লেখ করে ডবলমুরিং থানায় সদ্য দায়িত্ব নেয়া ওসি মোহাম্মদ মহসীন বলেন, ‘বিভিন্ন কারণে এলাকায় পুলিশ যাচ্ছে, বিভিন্ন মামলা আছে, ওয়ারেন্ট আছে। আইনশৃংখলা পরিস্থিতি ঠিক রাখার জন্য এটা করা হচ্ছে।’

তবে ডবলমুরিং থানা কেবল সতর্ক করার মধ্যে সীমাবদ্ধ থাকলেও এই ক্ষেত্রে সদরঘাট থানা আরেকধাপ এগিয়ে। তারা রোববার (২৪ জানুয়ারি) আব্দুল মান্নান নামে কাদেরের একজন সমর্থককে গ্রেপ্তার করেছে বলে জানিয়েছেন আব্দুল কাদেরের পরিবারের সদস্যরা।

তারা অভিযোগ করেছেন, মান্নানের বিরুদ্ধে কোনো ওয়ারেন্ট কিংবা মামলা ছিল না। এমনকি গ্রেপ্তারের সময় পুলিশও সুনির্দিষ্ট কোনো মামলার কথা জানায়নি। এই বিষয়ে জানতে সদরঘাট থানার ডিউটি অফিসারের সাথে যোগাযোগ করলে তিনি এই বিষয়ে ওসির সাথে কথা বলার পরামর্শ দেন।

পরে সদরঘাট থানার ওসি সাখাওয়াৎ হোসেনকে ফোন করলে সাংবাদিক পরিচয় পাওয়ার পর তিনি মিটিংয়ে আছেন বলে সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেন।

এআরটি/সিপি

ManaratResponsive

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

আরও পড়ুন
ksrm