বোট থেকে নামতে গিয়ে যাত্রী নিখোঁজ সন্দ্বীপ চ্যানেলে

0

চট্টগ্রামের সন্দ্বীপের গুপ্তছড়া নৌঘাট উপকূলে সার্ভিস বোট (যাত্রীবাহী ট্রলার) থেকে লাইফ বোট বা লাল বোটে নামতে গিয়ে এক যাত্রী নিখোঁজ হয়েছে।

শুক্রবার (১৯ আগস্ট) বেলা পৌনে ১১টার দিকে সীতাকুণ্ডের কুমিরা উপকূল থেকে সন্দ্বীপের গুপ্তছড়া উপকূলে সার্ভিস বোটটি পৌঁছালে এই দুর্ঘটনা ঘটে।

ঘাট কর্তৃপক্ষের দাবি, ওই যাত্রী সাঁতার কেটে উপকূলের তীরে পৌঁছে গেছে।

কিন্তু প্রত্যক্ষদর্শী যাত্রীরা বলছেন, দুর্ঘটনায় ওই যাত্রী সাগরে পড়ে যাওয়ার পর লাল বোট কিংবা সার্ভিস বোটের লোকজন ভুক্তভোগী যাত্রীকে উদ্ধারে এগিয়ে আসেনি।

এর আগে ২০ এপ্রিল সন্দ্বীপ উপকূলে একই ঘাটের চলাচলকারী একটি স্পিডবোট দুর্ঘটনায় একই পরিবারের তিন শিশুসহ মোট চার শিশু নিহত হয়েছিল।

Yakub Group

প্রত্যক্ষদর্শী যাত্রী তানভীর মাহমুদ বলেন, কুমিরা নৌঘাট থেকে সকাল ৯ টার দিকে একটি সার্ভিস ট্রলার যাত্রী নিয়ে সন্দ্বীপের উদ্দেশ্যে ছেড়ে আসে। সকাল সাড়ে দশটা দিকে সার্ভিস বোটটি সন্দ্বীপের গুপ্তছড়া ঘাটে এসে পৌঁছায়। সন্দ্বীপ চ্যানেল খুবই উত্তাল ছিল। প্রচন্ড বাতাস হয়েছিল। ‌ সার্ভিস বোটটি উপকূলের বাইরে নোঙ্গর করে। এ সময় যাত্রী নামানোর জন্য একটি লাল বোট পৌঁছানোর পর দুটি লাল বোটে যাত্রী উপকূলে পৌঁছায়। তৃতীয় লাল বোটে প্রথমে তারা চারজন যাত্রী নামেন এরপর একজন ৫০ থেকে ৬০ বয়সী ব্যক্তি নামার সময় লাল বোটটি ঢেউয়ের কারণে সার্ভিস ট্রলার থেকে কিছুটা দূরে সরে যায়। এতে তিনি সাগরে পড়ে যান।

তিনি বলেন, কিন্তু সার্ভিস ট্রলার কিংবা লাল বোটে থাকা যাত্রীরা সাগরে পড়ে যাওয়া যাত্রীকে উদ্ধারে চিৎকার করলেও লাল বোটের শ্রমিকেরা উদ্ধারে এগিয়ে আসেনি। ফলে লোকটি ডুবে যায়। অনেকক্ষণ পর লাল বোটে থাকা যাত্রীদের নিয়ে নিখোঁজ লোকটিকে খুঁজতে শুরু করে। তিনি সাড়ে ১১টা পর্যন্ত ঘাটে ছিলেন তখনও উদ্ধার হয়নি।

এদিকে এ বিষয়ে কোনো তথ্য নেই সন্দ্বীপ থানা কিংবা সন্দ্বীপ ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের কর্মকর্তাদের কাছে।

ঘাটের ইজারাদার আনোয়ার হোসেন এস এম আনোয়ার হোসেন বলেন, তিনি যেটুকু জেনেছেন সন্দ্বীপ উপকূলে সার্ভিস ট্রলার থেকে এক যাত্রী যাওয়ার সময় সাগরে পড়ে যায়। পরে ওই যাত্রী সাঁতার কেটে তীরে পৌঁছেছেন বলে ঘাটের শ্রমিকেরা তাকে জানিয়েছেন।

সিপি

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

ksrm