বিশ্বকাপ মিশনে ইংল্যান্ডে পৌঁছালো টাইগাররা

বাংলাদেশের প্রস্তুতি ম্যাচ ২৬ ও ২৮ মে

0

গত ১ মে প্রায় আড়াই মাসের জন্য দেশ ছেড়েছে বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। তবে সে যাত্রার প্রাথমিক গন্তব্য ছিলো আয়ারল্যান্ড, যেখানে স্বাগতিকদেরসহ ওয়েস্ট ইন্ডিজকে সঙ্গে নিয়ে ত্রিদেশীয় সিরিজ খেলেছে টাইগাররা। জিতেছে নিজেদের ইতিহাসের প্রথম শিরোপা।

সফল আয়ারল্যান্ড মিশন শেষে এবার সত্যিকার অর্থেই নিজেদের বিশ্বকাপ মিশন শুরু করেছে টাইগাররা। সে লক্ষ্যে বাংলাদেশ সময় শনিবার দিবাগত রাত, রোববার প্রথম প্রহরে ‘আপাতত গন্তব্য’ ইংল্যান্ডের লেস্টারে পৌঁছেছেন সাকিব আল হাসান-মুশফিকুর রহীমরা।

শুক্রবার রাতে ত্রিদেশীয় সিরিজের ফাইনাল শেষেই ইংল্যান্ডে যাওয়ার তাড়া ছিলো বাংলাদেশ দলের। তাই সেখানে শিরোপা জয়ের উদযাপনেও ছিলো না তেমন বাড়তি কোনো আড়ম্বর। ড্রেসিংরুমে নিজেদের মতো উল্লাসধ্বনি তুলে, ছবি তোলা পর্ব শেষেই সবাই ছুটেছিলেন টিম হোটেলে।

পরে আয়ারল্যান্ডের রাজধানী ডাবলিন থেকে বিমানে চড়ে বিশ্বকাপ স্কোয়াডের ১৩ খেলোয়াড় রওনা হয়েছেন লন্ডনের হিথ্রো বিমানবন্দরের উদ্দেশ্যে। ১৩ খেলোয়াড় কেন? কারণ অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা ফিরেছেন দেশে, ওপেনার তামিম ইকবাল পরিবারের সঙ্গে গিয়েছেন দুবাইয়ে।

তাই প্রাথমিকভাবে ইংল্যান্ডে গিয়েছে স্কোয়াডের ১৩ জন। লন্ডনের হিথ্রো বিমানবন্দরে সাকিব-মুশফিকদের অপেক্ষায় ছিলেন বিসিবির মিডিয়া ম্যানেজার রাবিদ ইমাম এবং অ্যান্টি করাপশন ইউনিটের প্রধান মঞ্জুর মোরশেদ।

দলে সেখানে পৌঁছার পর সবাই একসঙ্গে টিম বাসে করে প্রায় দেড় ঘণ্টা যাত্রা শেষে পৌঁছান লেস্টারে। যেখানে আগামী ২৩ মে পর্যন্ত অবস্থান করবে টিম বাংলাদেশ। আজকের দিনটি (১৯ মে) বিশ্রামে কাটিয়ে পরবর্তী তিন দিন চলবে লেস্টার পর্বের অনুশীলন।

পরে ২৪ মে থেকে শুরু হবে আইসিসির সাপোর্টিং পিরিয়ড। তখন থেকে অংশগ্রহণকারী দেশগুলোর সকল দায়দায়িত্ব নেবে বিশ্ব ক্রিকেটের অভিভাবক সংস্থাটি। তার আগপর্যন্ত লিস্টারে নিজেদের খরচেই অবস্থান করবে বাংলাদেশ।

এদিকে ২৪ মে থেকেই শুরু হবে বিশ্বকাপের প্রস্তুতি ম্যাচগুলো। তবে বাংলাদেশের ম্যাচ দুইটি হলো ২৬ ও ২৮ মে, কার্ডিফে। তাই ২৩ মে তেই লিস্টার ছেড়ে কার্ডিফে যাবে বাংলাদেশ। সেদিনই দুবাই থেকে তামিম ইকবাল এবং দেশ থেকে অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজাও যোগ দেবেন দলের সঙ্গে।

তবে মাশরাফি ইংল্যান্ড যাবেন আরও আগে। কারণ ২২ তারিখ সব দলের অধিনায়কদের নিয়ে সংবাদ সম্মেলনসহ বিশেষ অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে আইসিসি। সেখানে অংশ নিয়ে পরদিন দলের সঙ্গে যোগ দেবেন তিনি।

কার্ডিফে একদিন অনুশীলন শেষে ২৬ মে ভারত ও ২৮ মে পাকিস্তানের বিপক্ষে নিজেদের প্রস্তুতি ম্যাচ দুইটি খেলবে টাইগাররা। পরে ২৯ মে কার্ডিফ থেকে লন্ডনে ফিরবে পুরো দল। আগামী ২ জুন দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ওভালে শুরু হবে টাইগারদের বিশ্বকাপ মিশন।

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

আরও পড়ুন