বাসায় বসে কাজ করবে চট্টগ্রাম প্রতিদিনের কর্মীরা

0

করোনাভাইরাসের সংক্রমণ থেকে নিজেদের সুরক্ষিত রাখতে বাসায় বসে কাজ (ওয়ার্ক অ্যাট হোম) করার নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে চট্টগ্রাম প্রতিদিনে কর্মরত সকল সংবাদকর্মীকে। এই দুর্যোগ মূহূর্তে সবারই নিরাপদ থাকা প্রয়োজন। কর্মী এবং তাদের পরিবারকে নিরাপদ ও সুরক্ষিত রাখতে হোম অফিস বা ভার্চুয়াল অফিসের এই সিদ্ধান্ত নিয়েছি আমরা। মঙ্গলবার (২৪ মার্চ) থেকে প্রতিষ্ঠানটির সব সংবাদকর্মী ও কর্মকর্তা-কর্মচারী কাজ করবেন বাসা থেকে। তবে তাতে সংবাদ পরিবেশনে কোনো পরিবর্তন আসছে না। বরাবরের মতোই প্রতিটি ঘটনার সকল খবর তাৎক্ষণিক অনলাইনে জানিয়ে দেওয়া হচ্ছে।

আপৎকালীন এই সময়ে পরবর্তী নির্দেশনা না দেওয়া পর্যন্ত আমাদের সংবাদকর্মীরা অনলাইনভিত্তিক টুলস এবং প্রয়োজনে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে ভার্চুয়াল বার্তাকক্ষের সঙ্গে যোগাযোগ রাখবেন। যেসব কর্মীর বাড়ি থেকে কাজ করার সরঞ্জাম বা অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা নেই, তাদেরকে ইতিমধ্যে সেগুলো সরবরাহ করা হয়েছে।

চট্টগ্রাম প্রতিদিনের বার্তাকক্ষের একাংশ।
চট্টগ্রাম প্রতিদিনের বার্তাকক্ষের একাংশ।

আগে থেকেই অবশ্য চট্টগ্রাম প্রতিদিন দৈনন্দিন কার্যক্রমে শতভাগ প্রযুক্তিনির্ভর। শুরু থেকে সকল সংবাদকর্মী সার্বক্ষণিক বার্তাকক্ষের সঙ্গে যুক্ত থাকেন অনলাইনে। ফলে এই অভিজ্ঞতা আমাদের জন্য নতুন কিছু নয়।

বর্তমান পরিস্থিতিতে জনসমাগম এড়িয়ে জরুরি বিষয়গুলো কাভার করার জন্য রিপোর্টারদের নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। অতি জরুরি না হলে হাসপাতালের মতো স্পর্শকাতর স্থানগুলোতে না যেতেও রিপোর্টারদের বলা হয়েছে। প্রতিটি রিপোর্টারই আগে নিজের নিরাপত্তা নিশ্চিত করে তারপর কাজ করবেন— এমন নির্দেশনাই দেওয়া হয়েছে। চট্টগ্রাম প্রতিদিনের আলোকচিত্রী ও রিপোর্টারদের জন্য ব্যক্তিগত সুরক্ষা সরঞ্জামের ব্যবস্থা করা হচ্ছে। মেডিকেল বা ঝুঁকিপূর্ণ রিপোর্টিংয়ের জন্য বিশেষ পোশাক সংগ্রহের কথাও আমরা ভাবছি।

অযথা আতঙ্ক নয়— সচেতন হোন, নিরাপদ থাকুন। জনসমাগম এড়িয়ে চলুন, বাসায় থাকুন।

• সম্পাদক, দৈনিক চট্টগ্রাম প্রতিদিন
[email protected]

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।