আক্রান্ত
১৮৮৯
সুস্থ
১৭৯
মৃত্যু
৫৮

বশেরমুরপ্রবি উপাচার্যের পদত্যাগের দাবিতে মানববন্ধন চবিতে

0

আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের ওপর হামলার ঘটনায় সমালোচিত গোপালগঞ্জের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববদ্যালয়ের (বশেরমুরপ্রবি) উপাচার্য অধ্যাপক ড. খোন্দকার নাসির উদ্দিনের পদত্যাগ ও শিক্ষার্থীদের উপর হামলাকারীদের বিচারের দাবিতে মানববন্ধন করেছে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের (চবি) সাধারণ শিক্ষার্থীরা।

বিশ্ববিদ্যালয়ের অর্থনীতি বিভাগের চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থী দেওয়ান তাহমিদের সঞ্চালনায় রবিবার (২২ সেপ্টেম্বর) দুপুর ১২টার সময় বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদ মিনার প্রাঙ্গণে এই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।

মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন সমাজতত্ত্ব বিভাগের শিক্ষক মাইদুল ইসলাম, ইতিহাস বিভাগের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী সব্যসাচী ইমন, অর্থনীতি বিভাগের মাস্টার্সের ছাত্র আবিদ খন্দকার, রাজেশ্বর দাসগুপ্ত, একই বিভাগের প্রথম বর্ষের জাহিদুল হাসান, নৃ-বিজ্ঞান বিভাগের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী নোমান হোসেন, ইংরেজি বিভাগের চতুর্থ বর্ষের শিক্ষার্থী এমদাদুল হক, ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃত বিভাগের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী আরজু আহামেদ।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, ‘বিশ্ববিদ্যালয় হচ্ছে মুক্ত চিন্তার জায়গা। যেখানে শিক্ষার্থীদের স্বাধীন মত প্রকাশ করবে। বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থীদের মুক্ত চিন্তা স্বপ্ন দেখায়। শিক্ষার্থীরা হচ্ছে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণ। যদি একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে শিক্ষার্থী না থাকে তবে সেটি প্রাণহীন। বশেমুরবিপ্রবি উপাচার্য তার গুন্ডাবাহিনী দিয়ে সাধারণ শিক্ষার্থীদের উপর যে ন্যাক্কারজনক হামলা চালিয়ে আমরা তার নিন্দা ও প্রতিবাদ জানাচ্ছি। আমরা চাই অবিলম্বে শিক্ষার্থীদের উপর হামলার সঠিক বিচার করা এবং ওই বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যকে তার পদ থেকে অপসারণ করা।’

বক্তারা আরও বলেন, স্বৈরতন্ত্র বিলুপ্তির লক্ষ্যে বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিষ্ঠিত হয়েছে। কিন্তু বশেমুরবিপ্রবি উপাচার্য সেই স্বৈরাতন্ত্রকেই জাগিয়ে তুলছেন। যা মোটেও সহ্য করা যায় না। আমরা চাই বিশ্ববিদ্যালয়ের গণতান্ত্রিক মত প্রকাশের পরিবেশ সৃষ্টি হোক। বশেমুরবিপ্রবি উপাচার্যের আচরণ ও সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ড তার শিক্ষক পরিচয়টাকে প্রশ্নবিদ্ধ করে।

ছাত্র আন্দোলন কখনও বৃথা যায়নি। আমরা হামলাকারীদের বিচার ও উপাচার্যের পদত্যাগ চাই। যদি দাবি মেনে না নেয়া হয় তাহলে দেশের সকল শিক্ষার্থীর সাথে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীরা বৃহৎ আন্দোলনে যাবে বলে জানায় মানববন্ধনে অংশগ্রহণকারী শিক্ষার্থীরা।

এইচটি/এসএস

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

Manarat

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

আরও পড়ুন