বন্দুকযুদ্ধে ৭ রোহিঙ্গা ‘সন্ত্রাসী’ নিহত

টেকনাফের রোহিঙ্গা ক্যাম্প সংলগ্ন পাহাড়ে জকির গ্রুপের সঙ্গে র‌্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়নের (র‌্যাব) ‘বন্দুকযুদ্ধে’ সাত ডাকাত নিহত হয়েছে।

সোমবার (২ মার্চ) দিবাগত রাতে টেকনাফের মোচনী ও জাদিমোরা রোহিঙ্গা ক্যাম্প সংলগ্ন গভীর পাহাড়ে রোহিঙ্গা সন্ত্রাসী ও র‌্যাবের মধ্যে দফায় দফায় গোলাগুলির ঘটনা ঘটে বলে জানিয়েছে র‌্যাব।

র‌্যাব-১৫ টেকনাফ ক্যাম্পের কমান্ডার লে. মির্জা শাহেদ মাহতাব সংবাদের সত্যতা নিশ্চিত করে চট্টগ্রাম প্রতিদিনকে জানান, রোহিঙ্গা ক্যাম্প সংলগ্ন পাহাড়ে সন্ত্রাসী জকির বাহিনীর অবস্থানের খবর পেয়ে র‌্যাব সদস্যরা অভিযানে গেলে সন্ত্রাসীরা র‌্যাব সদস্যদের উপর গুলিবর্ষণ করে।

এসময় র‌্যাব সদস্যরাও পাল্টা গুলিবর্ষণ করে জবাব দেয়। এতেই রোহিঙ্গা সন্ত্রাসী জকির বাহিনীর ৭ সদস্য নিহত হয়।

প্রসঙ্গত, টেকনাফের নয়াপাড়া, শালবাগান ও জাদিমোরা রোহিঙ্গা ক্যাম্প সংলগ্ন পাহাড়ি এলাকায় অবস্থান নিয়ে অস্ত্রধারী জকির বাহিনী সহ বেশ কয়েকটি সন্ত্রাসী গ্রুপ মাদক ব্যবসা, খুন, অপহরণ সহ নানা অপরাধ কর্মকাণ্ড চালিয়ে আসছিল। এর আগেও সন্ত্রাসীদের সাথে র‌্যাবসহ আইন শৃংখলা বাহিনী গুলোর গোলাগুলির একাধিক ঘটনা ঘটেছিল। এতে রোহিঙ্গা শীর্ষ সন্ত্রাসী নুরুল আলমসহ বেশ কয়েকজন সন্ত্রাসী নিহত হন।

এসএইচ

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!