আক্রান্ত
১৫২১৬
সুস্থ
৩১৯৬
মৃত্যু
২৪৫

পিকআপের সিটের নিচে লুকানো ছিল ১০ হাজার পিস ইয়াবা

কর্ণফুলী এলাকা থেকে দুই মাদক ব্যবসায়ী আটক

0

একেক সময় একেক কৌশলে কক্সবাজার থেকে ইয়াবা এনে সারাদেশে পাচার করত চক্রটি। গোপন তথ্য পেলে অবশেষে র‍্যাবের জালে আটকা পড়তে হল সাতকানিয়ার দুই মাদক ব্যবসায়ীকে। পিকআপের সিটের নিচে লুকানো ১০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার করে মাদক বহনে ব্যবহার হওয়া পিকআপটি জব্দ করেছে র‍্যাব-৭।

বুধবার (২৯ জুলাই) বিকেল ৩ টায় কর্ণফুলী থানার চর ফরিদ এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়েছে।

আটকৃতরা হলেন, সাতকানিয়া থানার কেরানীহাট এলাকার নয়াপাড়া গ্রামের মো. শুরু শফির ছেলে মো. শওকত হোসেন (২৫), সাতকানিয়া থানার ফকিরহাট ছদাহা আশ্রয়ন প্রকল্প এলাকার মো. রাখা রফিকের ছেলে মো. আজিজুল হক রুবেল (২৮)।

র‌্যাব সূত্রে জানা যায়, আটককৃতরা দীর্ঘদিন ধরে নানা কৌশলে কক্সবাজার থেকে ইয়াবা পাচার করে দেশের বিভিন্ন অঞ্চলে বিক্রি করে আসছিল। গোপন সূত্রে তাদের অবস্থান জেনে কক্সবাজার থেকে আসা গাড়িগুলোকে কর্ণফুলী থানার চর ফরিদ এলাকায় (টুলসি রহমান এন্ড কোম্পানি ইউনিট-২), ফিলিং স্টেশনের সামনে বিশেষ চেকপোস্ট বসিয়ে তল্লাশি করে। এ সময় থামতে বলার পরও না থামলে ধাওয়া করে একটি পিকআপ আটক করে র‍্যাব। আটক করা পিকআপের সিটের নিচে লুকিয়ে রাখা হয়েছিল ১০ হাজার পিস ইয়াবা। এর আনুমানিক মুল্য ৫০ লাখ টাকা। এ সময় দুই মাদক ব্যবসয়ীকে আটক ও (নারায়ণগঞ্জ-ন-০২-০০২৪) নম্বরের পিকআপটি জব্দ করে র‍্যাব।

র‌্যাব-৭ এর সহকারী পরিচালক (মিডিয়া) মো. মাহমুদুল হাসান মামুন বলেন, মাদক ব্যবসায়ীরা ইয়াবাগুলো চট্টগ্রামে পাচারের উদ্দেশ্যে আনছিল। আটককৃতদের কর্ণফুলী থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে এবং মাদক আইনে মামলার প্রস্তুতি চলছে।

সিএম/এসএস

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

ManaratResponsive

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

আরও পড়ুন
ksrm