পাহাড়ে সুপেয় পানি সংকট, পানি নেই ঝিরি-ঝর্ণা নলকূপেও

রাঙামাটির বাঘাইছড়ি উপজেলায় বিশুদ্ধ পানির তীব্র সংকট দেখা দিয়েছে। চলতি বছর নির্দিষ্ট সময়ে বৃষ্টিপাত না হওয়ায় পাহাড়ের ঝিরি-ঝর্ণা শুকিয়ে পানির স্তর নিচে নেমে গেছে। ফলে রিংওয়েল টিউবওয়েলও পর্যাপ্ত পানি মিলছে না। রাত পোহালেই পানির জন্য যথারীতি যুদ্ধ করতে হয় বাঘাইছড়ির সাজেক, জীবতলী, তালুকদার পাড়া, মুসলিম ব্লক, বটতলী, উগলছড়ি, কাচালং বাজার, প্রশিক্ষণ টিলা উঁচু এলাকার বাসিন্দাদের।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শরিফুল ইসলাম খাবার পানির তীব্র সংকটের কথা শিকার করে বলেন, এ বছর বৃষ্টিপাতের পরিমান কম হওয়ায় পানির সংকট দেখা দিয়েছে। তবে জনস্বাস্থ্য বিভাগের মাধ্যমে উপজেলায় এবার প্রচুর টিউবওয়েল বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। উপজেলা পরিষদও পানির সংকট নিরসনে বিভিন্ন প্রকল্প হাতে নিয়েছে। সেগুলো বাস্তবায়ন করা গেলে আগামীতে পানির এই সংকট থাকবে না।

এদিকে, জনস্বাস্থ্য বিভাগ বলেছে, এই সমস্যা রাতারাতি সামাধান করা সম্ভব নয়। পাহাড়ি অঞ্চল হওয়ায় গভীর নলকূপ বসানোর কাজটিও কঠিন। তাই তাদের প্রকল্প বাস্তবায়নে কিছুটা বেগ পেতে হচ্ছে।

স্থানীয় গ্রামবাসীর অভিযোগ, কিছু এলাকায় গভীর নলকূপ থাকলেও স্থাপনের সময় সংশ্লিষ্ট বিভাগের কিছু অসাধু কর্মকর্তার যোগসাজশে সঠিক নিয়ম ও গভীরতা না মানায় শুকনো মৌসুমে পানির সংকট দেখা দেয়। তাই নতুন নলকূপ বসানোর সময় প্রশাসনিকভাবে তদারকির জোর দাবি জানান তারা।

এসএ

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!