s alam cement
আক্রান্ত
১০১৭৮৪
সুস্থ
৮৬৮০১
মৃত্যু
১৩০১

পর্যটনকেন্দ্রে ক্যাসিনো চালানোর সুপারিশ, কক্সবাজারের তিন মোটেল একত্র করার প্রস্তাব

0

কক্সবাজারসহ দেশের পর্যটন এলাকাগুলোতে বিদেশিদের জন্য ‘ডেডিকেটেড ক্যাসিনোসহ’ তাদের বিনোদন উপযোগী সব ধরনের সুযোগ সুবিধা রেখে স্থাপনা নির্মাণের সুপারিশ করেছে সংসদীয় কমিটি।

সোমবার (৪ অক্টোবর) সংসদ ভবনে অনুষ্ঠিত সরকারি প্রতিষ্ঠান কমিটির বৈঠকে এ সুপারিশ করা হয়।

কমিটির সভাপতি আ স ম ফিরোজ সাংবাদিকদের বলেন, ‘বিদেশি পর্যটকদের আকৃষ্ট করার জন্য আমরা একটি এক্সক্লুসিভ জায়গা নির্ধারণ করে বিদেশিদের জন্য সকল সুযোগ সুবিধা রাখার ব্যবস্থা করতে বলেছি। আমাদের এখানে অনেক বিদেশি ক্রেতা আসেন। কিন্তু বিদেশিদের জন্য আমাদের এখানে বিনোদনের কোনো ব্যবস্থা নেই। সমস্ত মুসলিম দেশগুলোর জন্য তাকালে দেখা যাবে তারা বিদেশি পর্যটকদের জন্য আলাদা ব্যবস্থা রেখেছে।’

কক্সবাজারের পর্যটন করপোরেশনের মোটেল শৈবাল, প্রবাল ও উপলকে একত্রিত করে মাস্টারপ্লানের মাধ্যমে আধুনিক, আকর্ষণীয় এবং উন্নত সুযোগ সুবিধা সম্বলিত পর্যটন স্থাপনা তৈরি এবং বৈঠকে কুয়াকাটার পর্যটন এলাকা সুনির্দিষ্টভাবে চিহ্নিত করে অগোছালো স্থাপনা নির্মাণ বন্ধ করে মাস্টার প্ল্যানের মাধ্যমে আধুনিক, আকর্ষণীয় এবং উন্নত সুযোগ সুবিধা সম্বলিত পর্যটন স্থাপনা তৈরির সুপারিশ করা হয়।

কমিটির সভাপতি আ স ম ফিরোজ বলেন, ‘কক্সবাজারের তিনটি মোটেলে মোট সাড়ে ১৫ একর জমি। এগুলোর অবস্থানও একেবারেই সৈকতের কাছে। কিন্তু সেখানের মোটেল তিনটিতে সেই ধরনের সুযোগ-সুবিধা নেই। বেশিরভাগ রুমগুলো নন এসি। পর্যটকরা সেখানে থাকতে চান না। এজন্য আমরা তিনটি মোটেলকে একত্রিত করে বড় সব ধরনের সুযোগ সুবিধা সম্বলিত স্থাপনা তৈরির সুপারিশ করেছি।’

সরকারি প্রতিষ্ঠান কমিটির বৈঠকে উপস্থিত ছিলেন কমিটির সদস্য মোস্তাফিজুর রহমান, মাহবুব উল আলম হানিফ, মির্জা আজম, মুহিবুর রহমান মানিক এবং নাহিদ ইজাহার খান বৈঠকে অংশ নেন।

বাংলাদেশ ট্যুরিজম বোর্ডের তথ্য অনুযায়ী, ২০১৯ সালে বাংলাদেশে বিদেশি পর্যটকের সংখ্যা ছিল ৩ লাখ ২৩ হাজার। এই সময় অভ্যন্তরীণ পর্যটকের সংখ্যা ছিল এক কোটি।

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm