নতুন নিয়মে চট্টগ্রামের সড়কে আবারও লাল-সবুজ বাতি

0

চট্টগ্রাম নগরে নতুন ট্রাফিক নিয়ম চালু করছে ট্রাফিক বিভাগ। নতুন নিয়ম অনুসারে গাড়ির চাপ অনুযায়ী লাল ও সবুজ বাতি জ্বলবে, জরুরি সময়ে সব পয়েন্টে লাল বাতি জ্বালিয়ে অটোমেটিক ও সেমি অটোমেটিক দুইভাবে যানজট নিয়ন্ত্রণ করা হবে। প্রাথমিকভাবে এই নিয়ম টাইগারপাস এলাকায় চালু করলেও পরবর্তীতে নগরের ৩২টি স্পটে চালু করার কথা রয়েছে।

প্রায় ৩০ বছর ধরে চট্টগ্রাম নগরের ৩২ স্থানের সড়ক বাতি অকেজো। ট্রাফিক পুলিশেরা সড়কের মাঝে দাঁড়িয়ে দুই হাত প্রসারিত করে ও রাতে লেজার লাইট জ্বালিয়ে যান চলাচল নিয়ন্ত্রণ করে আসছে৷ মোড়গুলোতে একাধিক সংযোগ সড়ক থাকলে সব সড়কে গাড়ির চাপ সমান থাকে না। এছাড়া রিকশার আধিক্যর কারণে সড়কে পেছনের গাড়িগুলো স্বাভাবিক গতিতে চলতে পারে না। ফলে অটোমেটিক নিয়মে চালিত বাতি দিয়ে নিয়ন্ত্রণ যে সড়কে গাড়ির চাপ বেশি সে সড়কে যানজট লেগেই থাকে।

ট্রাফিক নিয়ন্ত্রণে নতুন নিয়ম চালু করেছে ট্রাফিক বিভাগ। নতুন নিয়মে অটোমেটিক ও সেমি অটোমেটিক দুইভাবে ট্রাফিক নিয়ন্ত্রণ করা যাবে। যদি কোন সড়কে গাড়ি চাপ বেশি থাকে তাহলে সে সড়কে গাড়ি চলাচলে বেশি সময় দেওয়ার জন্য সবুজ বাতি জ্বালিয়ে রাখা যাবে। যদি সব সড়কে গাড়ির চাপ সমান থাকে তাহলে অটোমেটিক নিয়মেও নিয়ন্ত্রণ করা যাবে। চাইলে প্রতিটি স্পট অথবা এক জায়গা থেকে পুরো নগরের ট্রাফিক ব্যবস্থা নিয়ন্ত্রণ করা যাবে।

দেশীয় প্রযুক্তিতে এই নিয়মটি উদ্ভাবন করেছেন ইস্টিলার নামক একটি প্রতিষ্ঠান। চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের অ্যাসোসিয়েট প্রফেসর আরিফ ইফতিখারের নেতৃত্বে চবি, আই আই ইউসি, সাদার্ন, ইউএসটিসির সাবেক ছাত্রদের একটি দল৷ প্রতিটি মোড়ে স্থাপিত কন্ট্রোল বোর্ডের কোড, ফেয়ারওয়েল, থ্রিডি ডিজাইন, পিসিবি, এসেস্বলি সবগুলো নিজেরা করেছেন তিনদিনের মধ্যে।

প্রাথমিকভাবে টাইগারপাসে চালু করে পরবর্তীতে তা নগরের ৩২ স্পটে চালু করা হবে। ইতিমধ্যে এই নিয়মটি টাইগারপাস মোড়ে সফল পরীক্ষা চালানো হয়েছে। কম খরচে উদ্ভাবিত এই নিয়ম যদি সারা দেশে চালু করা যায় তাহলে ট্রাফিক নিয়ন্ত্রণে গতি ও অনেক টাকা সাশ্রয় হবে।

অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (ট্রাফিক বিভাগ) মোস্তাক আহমেদ বলেন, নতুন নিয়মে অটোমেটিক ও সেমি অটোমেটিক পদ্ধতিতে ট্রাফিক নিয়ন্ত্রণ করা হবে। আমরা প্রাথমিকভাবে টাইগারপাস এলাকায় চালু করেছি। পরবর্তীতে তা পর্যায়ক্রমে অন্যান্য জায়গায় চালু করা হবে।

এ ব্যাপারে ইস্টিলার সিও আরিফ ইফতিখার বলেন, ‘আমাদের উদ্ভাবিত এই নিয়মে সড়কে গাড়ির চাপ অনুযায়ী বাতির সময় বাড়ানো ও কমানো যাবে৷ এতে যানজট নিয়ন্ত্রণে ব্যয় কমে আসবে৷ প্রাথমিকভাবে টাইগার পাস এলাকায় সিস্টেমটি চালু করে পরবর্তীতে দেশের সব জায়গায় চালু করা হবে। আশা করি মানুষ নতুন নিয়মে সুফল পাবেন।’

সিএম/এসএস

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

আরও পড়ুন