দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে আবারও মোসলেম—মফিজ

চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগে আবারো সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব পেয়েছেন মোসলেম উদ্দিন আহমেদ ও মফিজুর রহমান।

সম্মেলনের প্রথম অধিবেশন শেষে এই দুইজনের নাম ঘোষণা করেন কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও চট্টগ্রাম বিভাগের দায়িত্বপ্রাপ্ত মাহবুবুল আলম হানিফ।

এরআগে সোমবার (১২ ডিসেম্বর) সকাল ১০টায় নগরীর এমএ আজিজ স্টেডিয়ামের জিমনেশিয়ামের মাঠে পতাকা উত্তোলনের মাধ্যমে সম্মেলন শুরু হয়।

চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোছলেম উদ্দিন আহমদ এমপি’র সভাপতিত্বে সম্মেলনে উদ্বোধন করেন আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য ইঞ্জিনিয়ার মোশাররফ হোসেন এমপি।

ভার্চ্যুয়ালি যুক্ত হয়ে প্রধান অতিথির বক্তব্য রেখেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

সম্মেলনে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ও তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ, সাংগঠনিক সম্পাদক আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপন, ভূমিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ, শিক্ষা উপমন্ত্রী ব্যারিস্টার মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল, আওয়ামী লীগের দপ্তর সম্পাদক ও প্রধানমন্ত্রীর বিশেষ সহকারী ব্যারিস্টার বিপ্লব বড়ুয়া, উপ-প্রচার সম্পাদক আমিনুল ইসলাম আমিন, চট্টগ্রাম উত্তর জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি এম এ সালাম, চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহতাব উদ্দিন চৌধুরী ও সাধারণ সম্পাদক আ জ ম নাছির উদ্দিন, জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান এটিএম পেয়ারুল ইসলাম।

Yakub Group

এর আগে সর্বশেষ ২০০৫ সালের ২৩ জুলাই নগরীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউট মিলনায়তনে চট্টগ্রাম দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের সর্বশেষ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়েছিল। ওই সম্মেলনে প্রবীণ আওয়ামী লীগ নেতা প্রয়াত আখতারুজ্জামান চৌধুরী বাবু সভাপতি এবং মোছলেম উদ্দিন আহমদ (বর্তমান সভাপতি) সাধারণ সম্পাদক হয়েছিলেন।

পরবর্তীতে ২০১০ সালে আতাউর রহমান খান কায়সারের মৃত্যুর পর প্রয়াত আখতারুজ্জামান চৌধুরী বাবুকে কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য করা হয়।

২০১২ সালের ৪ নভেম্বর আখতারুজ্জামান চৌধুরী বাবুর মৃত্যুর পর ২০১৩ সালে তৎকালীন সাধারণ সম্পাদক মোছলেম উদ্দিন আহমদকে সভাপতি ও চট্টগ্রাম মহানগর ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি মফিজুর রহমানকে সাধারণ সম্পাদক করে কেন্দ্র থেকে দক্ষিণ জেলা আওয়ামী লীগের কমিটি ঘোষণা করা হয়। এই কমিটিই বর্তমানে দায়িত্ব পালন করছেন।

আরএম/এমএফও

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

ksrm