জামিন জালিয়াতি, কারাগারে গেলেন আইনজীবী নিজেই

হাইকোর্টের সাথে জামিন জালিয়াতির অভিযোগে মাহমুদুল হক সুমন (৩০) নামের এক আইনজীবীকে গ্রেপ্তার করেছে সিআইডি। একইসাথে তাকে আদালতে হাজির করে তিন দিনের রিমান্ড চাইলে জেলগেইটে জিজ্ঞাসাবাদের নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

বৃহস্পতিবার (৫ মার্চ) চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট (সিএমএম) মহিউদ্দিন মুরাদের আদালতে বারের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকসহ শতাধিক আইনজীবীর উপস্থিতিতে শুনানি শেষে এ আদেশ দিয়েছেন।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন এসি প্রসিকিউশন কাজী শাহাবুদ্দিন।

এজাহার সূত্রে জানা যায়, মো. নেজাম উদ্দীন (৪৯) নামের এক আসামি থেকে ৪০ হাজার পিচ ইয়াবা উদ্ধার করা হয়। যার মূল্য ১ কোটি ৬০ লাখ টাকা। পরবর্তীতে তার বিরুদ্ধে কোতোয়ালি ও রেলওয়ে থানায় মাদক মামলা দায়ের করে র‌্যাব। এজাহারনামা ও অভিযোগপত্রে অভিযুক্ত আসামি মো. নিজাম উদ্দিন খান এডভোকেট মাহমুদুল হক সুমনের মাধ্যমে মোটা অংকের অর্থের বিনিময়ে জাল জালিয়াতির আশ্রয় নিয়ে সংঘবদ্ধ চক্রের সহায়তায় নাজিমের কাছ থেকে মাদক পাওয়া যায়নি উল্লেখ করে সহিমুহুরী নকল কপি জাল করে হাইকোর্টে উপস্থাপন করেন। পরবর্তীতে সিআইডির তদন্তকালে আসামি নিজাম জাল জালিয়াত চক্রের সাথে জড়িত বলে তথ্য পাওয়া যায়। এরপর তাকে চট্টগ্রাম জেল হতে রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। এরপর তথ্য বেরিয়ে আসে- চট্টগ্রাম আদালতের আইনজীবী মাহমুদুল হক সুমনকে আসামি নিজাম উদ্দিন তার শ্যালক হারিছের মাধ্যমে ৬ লাখ টাকা চুক্তি করে। পরে ব্যাংক চেকের মাধ্যমে ৪ লাখ টাকা ও নগদে দুই লাখ টাকা পরিশোধ করা হয়। এই সংক্রান্তে হাইকোর্টের সংশ্লিষ্ট এডভোকেট /ব্যারিস্টার এবং বিচারককে সনাক্ত করা জন্য আলাদাভাবে প্রতিবেদন প্রেরণ করা হয়।

এনজে/এসএ

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!