ছয় মাসে পানিতে ডুবে চাঁদপুরের ২৫ শিশুর মৃত্যু

চলতি বছরের জানুয়ারি থেকে জুলাই পর্যন্ত চাঁদপুর জেলায় পানিতে ডুবে ২৫ জন শিশুর মৃত্যু হয়েছে।

বিশ্ব পানিতে ডুবা প্রতিরোধ দিবস উপলক্ষে মঙ্গলবার দুপুরে এক আলোচনা সভায় এ তথ্য জানান চাঁদপুর সিভিল সার্জন কার্যালয়ের মেডিকেল অফিসার জাহিদুজ্জামান।

দিবসটি উপলক্ষে সকালে জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সামনে থেকে একটি বর্ণাঢ্য শোভাযাত্রা বের হয়ে পুনরায় একই স্থানে এসে শেষ হয়।

সভাপতির বক্তব্যে চাঁদপুরের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) বশির আহমেদ বলেন, অরুণ নন্দী সুইমিং দীর্ঘদিন বন্ধ থাকার পর আবার চালু হতে যাচ্ছে।

শিক্ষকদের উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, “নিজস্বভাবে আপনারাও সাঁতার শেখানোর উদ্যোগ গ্রহণ করতে পারেন। প্রয়োজনে জেলা প্রশাসন থেকে সহযোগিতা করা হবে।”

সিভিল সার্জন কার্যালয়ের জাহিদুজ্জামান জানান, এ জেলায় পানিতে ডুবে ২০২২ সালে ৪৯ জন, ২০২১ সালে ৫৩, ২০২০ সালে ৪৩ ও ২০১৯ সালে ৪৯ শিশুর মৃত্যু হয়েছে।

Yakub Group

সভায় সাংবাদিক এম আর ইসলাম বাবুর সঞ্চালনায় বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অর্থ ও প্রশাসন) সুদীপ্ত রায়, সিভিল সার্জন মুহাম্মদ সাহাদাৎ হোসেন, স্বাধীনতা পদকপ্রাপ্ত নারী মুক্তিযোদ্ধা সৈয়দা বদরুন্নাহার চৌধুরী ও এনজিও কর্মকর্তা জহিরুল হক। শিশু বিষয়ক কর্মকর্তা মো. কাউছার আহমেদ স্বাগত বক্তব্য দেন।

সভাশেষে চিত্রাংকন প্রতিযোগিতায় বিজয়ীদের মধ্যে পুরষ্কার তুলে দেন অতিথিরা।

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!