চাকরির প্রলোভনে টাকা হাতানোর অভিযোগে ২ জন আটক রাঙামাটিতে

রাঙামাটি শহরে চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে টাকা হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগে কথিত একটি ক্ষুদ্র ঋণ সংস্থার দুই ‘প্রতারক’কে আটক করেছে মোবাইল কোর্ট।

সোমবার (৫ ডিসেম্বর) দুপুরে জেলা শহরের কল্যাণপুরে অবস্থিত ‘শেয়ার পয়েন্ট স্মল বিজনেস কো-অপারেটিভ সোসাইটি লিমিটেড’ নামে কথিত সংস্থাটির দু’জনকে আটক করা হয়।

আটকরা হলো মো. নাসির উদ্দিন (৪৩) ও মোজাম্মেল হক (২৭)। এদের মধ্যে নাসির কুমিল্লা জেলার ব্রাহ্মণপাড়ার আয়েত আলীর ছেলে এবং মোজাম্মেল সাতক্ষীরা জেলার নুপুর সর্দারের ছেলে। তারা একজন নিজেকে শাখা ব্যবস্থাপক ও আরেকজন সহযোগী কর্মকর্তা পরিচয় দেন বলে জানিয়েছে পুলিশ।

আটকের বিষয়টি নিশ্চিত করে রাঙামাটির কোতোয়ালী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আরিফুল আমিন জানান, দুই প্রতারককে ভ্রাম্যমাণ আদালত আটক করে পুলিশে দিয়েছে। ছয়জন ভুক্তভোগী থেকে তারা ২৭ হাজার টাকা করে হাতিয়ে নিয়েছে, ভুক্তভোগী ছয়জনই থানায় উপস্থিত হয়েছেন। আরও অনেকের কাছ থেকেও টাকা হাতিয়ে নিতে পারে। আটকদের বিরুদ্ধে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।

এদিকে জেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট বিজয় কুমার জোয়ার্দার বলেন, ‘চাকরির প্রলোভনে টাকা নেওয়ার অভিযোগ পেয়ে আমরা কথিত সংস্থাটির কার্যালয়ে যাই। তারা আমাদের কোনো বৈধ কাগজপত্র দেখাতে পারেননি। পরে দু’জনকে আটক করে থানায় দিয়েছি।’

ভুক্তোভোগী ও মোবাইল কোর্ট সূত্রে জানা গেছে, এ পর্যন্ত ফিল্ড অফিসার পদে ৬ জন চাকরিপ্রার্থী ২৭ হাজার টাকা করে জামানত হিসেবে দিয়েছে। সোমবার (৫ ডিসেম্বর) আরও কয়েকজনের টাকা জমা দেওয়ার কথা ছিল, তাদের বেশ কয়েকজন জেলা প্রশাসনে অভিযোগ দিলে জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট দুজনকে আটক করে পুলিশে হস্তান্তর করে।

Yakub Group

ভুক্তভোগী মিথুন চাকমা নামের এক ব্যক্তি জানান, ফিল্ড অফিসার পদে চাকরির সুবাদে আমার থেকে প্রথম ধাপে দুই হাজার টাকা করে নেওয়া হয়েছিল। পরে আবার ২৫ হাজার টাকা করে মোট ২৭ হাজার টাকা নিয়েছে। আজ শুনি, ভুয়া প্রতিষ্ঠান হওয়ায় প্রশাসন প্রতিষ্ঠানের দু’জনকে আটক করে থানায় দিয়েছে। আমরা আমাদের জমা টাকা ফেরত চাই।’

ডিজে

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

ksrm