আক্রান্ত
১৯৮৫
সুস্থ
১৭৯
মৃত্যু
৫৮

হটলাইনে অভিযোগের পাহাড়, চসিকে সোমবার গণশুনানি দুদকের

অনুসন্ধানে ৫ টিম

1

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনে (চসিক) অনিয়ম দুর্নীতি হচ্ছে হটলাইনে এরকম অহরহ অভিযোগ পেয়ে এবার এই সরকারি সেবাধর্মী প্রতিষ্ঠানটিতে গণশুনানি করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। আগামী ১৪ সেপ্টেম্বর নগরীর চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বীর উত্তম শাহ আলম মিলনায়তনে দিনব্যাপী এই গণশুনানির যাবতীয় প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে। চসিকের সেবাপ্রার্থীদের অভিযোগ জানতে পাঁচটি টিম পৃথকভাবে কাজ শুরু করেছে।

দুদক সূত্রে জানা গেছে, চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনে নাগরিক সেবা গ্রহণে ভোগান্তি কমানোর জন্য দুর্নীতি দমন কমিশন ও মহানগর দুর্নীতি প্রতিরোধ কমিটির যৌথ উদ্যোগে এ গণশুনানির আয়োজন করা হচ্ছে। অনুষ্ঠানে দুদকের কমিশনার (তদন্ত) এএফএম আমিনুল ইসলাম প্রধান অতিথি থাকার কথা রয়েছে। গণশুনানি সফল করতে দুদকের বিভাগীয় পরিচালক মাহমুদুল হাসানের নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধি দল চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দিনের সঙ্গে সোমবার বিকেলে বৈঠকও করেছেন। গণশুনানিকে সফল করতে সর্বাত্মক সহযোগিতা করার আশ্বাস দেওয়া হয়েছে সিটি করপোরেশনের পক্ষ থেকে।

জানা গেছে, গণশুনানি চসিকে সেবা নিতে নানা নাগরিক ভোগান্তির শিকার লোকজনের উপস্থিতি বাড়াতে উদ্যোগ নেয়া হয়েছে। ইতোমধ্যে গত ১ অক্টোবর থেকে অভিযোগ সংগ্রহের লক্ষ্যে টাইগারপাস সংলগ্ন সিটি কর্পোরেশনের নতুন অস্থায়ী কার্যালয়ের সামনে দুদকের একটি টিম কাজ শুরু করেছে। তাছাড়া চসিকের রাজস্ব সার্কেলগুলোতেও অভিযোগ সংগ্রহে দুদকের ৫টি পৃথক টিম মাঠ পর্যায়ে অভিযোগ সংগ্রহ করবে।

এছাড়াও গণশুনানিতে উপস্থিতি বাড়াতে নগরীতে মাইকিং, পোস্টার, লিফলেট বিতরণ করার পদক্ষেপ নিয়েছে দুদক। কেউ চাইলে দুদক কার্যালয়ে গিয়েও সরাসরি অভিযোগ জানাতে পারবেন বলে জানিয়েছেন দুদক সমন্বিত জেলা কার্যালয়-১ এর সহাকরী পরিচালক ফখরুল ইসলাম।

তিনি বলেন, ‘বিদ্যুৎ অফিস, চট্টগ্রাম মেডিকেল, পাসপোর্ট অফিসসহ বেশ কয়েকটি সরকারি অফিসে গণশুনানি করা হলেও চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনে কখনো গণশুনানি করা হয়নি। কিন্তু হটলাইনে আমরা অহরহ এই সেবা সংস্থাটির বিরুদ্ধে অনিয়ম দুর্নীতির অভিযোগ পাচ্ছি। বিশেষ করে রাজস্ব বিভাগের বিরুদ্ধেই বেশি অভিযোগ আসছে। এছাড়া আজকাল সড়কের উন্নয়নে দুর্নীতির পাশাপাশি ময়লা ব্যবস্থাপনায়ও অনিয়মের অভিযোগ উঠেছে।’

দুদকের এ কর্মকর্তা আরো বলেন, ‘আগামী ১৪ অক্টোবর ৯ (সোমাবার) গণশুনানি হবে। ১৩ অক্টোবর বিকেল পাঁচটা পর্যন্ত ভুক্তভোগীদের লিখিত বা মৌখিক অভিযোগ গ্রহণ করা হবে। গণশুনানিতে ভুক্তভোগীর অভিযোগ তাৎক্ষণিক শুনানি করে সমস্যা সমাধানে পদক্ষেপ নেয়া হবে।’

কয়েক মাস আগে দুদকের হটলাইন নম্বর ১০৬-এ অভিযোগ পেয়ে সিটি কর্পোরেশনের কয়েকটি বিভাগে অভিযানও পরিচালনা করেছিল দুদক কমিশন। যাতে অভিযোগের সত্যতাও পেয়েছে দুদক। এছাড়া কর্পোরেশনের একাধিক কর্মকর্তা-কর্মচারীর বিষয়েও দুর্নীতির অনুসন্ধান কাজ চালিয়ে যাচ্ছে বিভাগটি। সব মিলিয়ে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগের মাত্রা বেড়ে যাওয়ায় এমন সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে বলেও জানান দুদক কর্মকর্তারা।

এডি/এসএস

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

Manarat
1 মন্তব্য
  1. সবুজ বলেছেন

    সব মিলিয়ে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের অনিয়ম ও দুর্নীতির অভিযোগের মাত্রা বেড়ে যাওয়ায় এমন সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে বলেও জানান দুদক কর্মকর্তারা।

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।