চট্টগ্রাম বন্দরে কন্টেইনার জটের আশঙ্কা, ধর্মঘটের দ্বিতীয় দিনেও পণ্য ডেলিভারি বন্ধ

0

চট্টগ্রাম বন্দরে কন্টেইনার জটের আশংকা দেখা দিয়েছে। দুই দিনের পরিবহন ধর্মঘটে ৩৬ হাজার কন্টেইনার জমা হয়েছে। সাধারণ সময়ে দিনে ২৫ থেকে ৩০ হাজার কন্টেইনার জমা থাকে বন্দর ইয়ার্ডে। এতে ধারণ ক্ষমতা প্রায় ৫০ হাজার কন্টেইনার। শুক্রবার (৫ নভেম্বর) সাপ্তাহিক ছুটির দিনে কোনো পণ্যবাহী যানবাহন বন্দর থেকে বের না হওয়ায় প্রায় ৬ হাজার কন্টেইনার অতিরিক্ত আটকা পড়েছে।

বন্দর সংশ্লিষ্টরা জানিয়েছেন, শনিবার (৬ নভেম্বর) সকাল থেকে কোনো পণ্যবাহী যানবাহন বের হয়নি বন্দর থেকে। যার ফলে কন্টেইনার জট আরও বাড়বে। ধর্মঘট প্রত্যাহার না হলে দীর্ঘ কন্টেইনার জটের আশংকা করছে বন্দর কর্তৃপক্ষ।

চট্টগ্রাম বন্দর সচিব ওমর ফারুক বলেন, ‘ধর্মঘটের কারণে দ্বিতীয় দিনের মতো পণ্য ডেলিভারি কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে। জাহাজ থেকে মালামাল উঠা-নামার কাজ স্বাভাবিক রয়েছে। পাশাপাশি ডিপোগুলোতে পণ্য আনা-নেওয়ার কাজও চলছে।’

তিনি বলেন, ‘ধর্মঘট প্রত্যাহার না হলে বন্দরে জট তৈরি হবে। বন্দরে আরও ১৪ হাজার টিইইউস কনটেইনার রাখা যাবে। বর্তমানে ৩৬ হাজার টিইইউস (বিশ ফুট দৈর্ঘের কন্টেইনার) কন্টেইনার রয়েছে।’

জানা গেছে, গত বুধবার (৩ নভেম্বর) মধ্যরাত থেকে ডিজেলের মূল্য লিটারপ্রতি ১৫ টাকা বৃদ্ধি করেছে সরকার। এ নিয়ে পরদিন বৃহস্পতিবার পরিবহন খাতের বিভিন্ন সংগঠনের নেতারা বৈঠক করেন। বৈঠক শেষে শুক্রবার সকাল ৬টা থেকে সারাদেশে ধর্মঘটের ডাক দেওয়া হয়। চট্টগ্রাম বন্দরে গতকাল (শুক্রবার) ভোর ৬টা থেকে বন্ধ রয়েছে পণ্য ডেলিভারি কার্যক্রম।

Yakub Group

এমএফও

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm