চট্টগ্রামে ৩ লাখ মানুষ খোলা আকাশের নিচে মলত্যাগে অভ্যস্থ, কাঁচা টয়লেটে যান ৮ লাখ

চট্টগ্রাম বিভাগে প্রায় দুই কোটি মানুষ নিরাপদভাবে টয়লেট ব্যবহার করলেও অন্তত তিন লাখ মানুষ এখনও খোলা জায়গায় মলত্যাগে অভ্যস্থ। চলতি বছর পরিচালিত বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরোর (বিবিএস) প্রথম ডিজিটাল ‘জনশুমারি ও গৃহগণনা’ প্রতিবেদন এই তথ্য উঠে এসেছে।

এতে দেখা গেছে, চট্টগ্রাম বিভাগে খোলা জায়গায় মলত্যাগ করেন ২ লাখ ৯৯ হাজার মানুষ। বিপরীতে এই বিভাগে ফ্লাশ করে কিংবা পানি ঢেলে নিরাপদভাবে টয়লেট সুবিধা ব্যবহার করেন প্রায় ১ কোটি ৯৬ লাখ মানুষ। অন্যদিকে কাঁচা, খোলা ও ঝুলন্ত টয়লেট ব্যবহার করেন ৭ লাখ ৮০ হাজার মানুষ।

চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন এলাকায় প্রতি এক লাখ ৭৬ হাজার ৪৭০ জন বাসিন্দার জন্য গণশৌচাগার রয়েছে গড়ে মাত্র একটি। সবমিলিয়ে নগরীতে বসবাসরত ৬০ লক্ষাধিক মানুষের জন্য মাত্র ৩৪টি গণশৌচাগার চালু আছে।

গত বছরের শেষদিকে বেসরকারি উন্নয়ন সংস্থার সহায়তায় সুবিধাবঞ্চিত ভিক্ষুক, প্রতিবন্ধী, তৃতীয় লিঙ্গের মানুষের মাঝে বিনামূল্যে পাবলিক টয়লেট ব্যবহারের কার্ড বিতরণ করার উদ্যোগ নেয় চট্টগ্রাম সিটি কপোরেশন। তবে এই উদ্যোগে খুব একটা ফল আসেনি। যদিও সিটি কর্পোরেশনের হিসাবেই নগরে সুবিধাবঞ্চিত প্রায় ১৫ লাখ মানুষ রয়েছেন।

বিবিএসের প্রতিবেদন অনুযায়ী, দেশের আট বিভাগের মধ্যে তালিকার শীর্ষে আছে রংপুর, সেখানে খোলা জায়গায় মলত্যাগ করেন ৭ লাখ ৩৫ হাজারেরও বেশি মানুষ।

এছাড়া রাজশাহী বিভাগে প্রায় ৩ লাখ ১৭ হাজার মানুষ, সিলেট বিভাগে ২ লাখ ৯৩ হাজার মানুষ, ময়মনসিংহ বিভাগে ১ লাখ ৯০ হাজার মানুষ, ঢাকা বিভাগে প্রায় ১ লাখ ২৩ হাজার মানুষ, খুলনা বিভাগে ৬০ হাজার মানুষ ও বরিশাল বিভাগে ২৭ হাজার মানুষ খোলা জায়গায় মলত্যাগ করেন।

Yakub Group

প্রথম ডিজিটাল ‘জনশুমারি ও গৃহগণনা ২০২২’ এর প্রকাশিত প্রতিবেদন অনুযায়ী, ঢাকা বিভাগের প্রায় ৩ কোটি ৭ লাখ মানুষ ফ্লাশ করে কিংবা পানি ঢেলে নিরাপদভাবে টয়লেট সুবিধা ব্যবহার করেন। অন্যদিকে এই বিভাগের ৬ লাখ ৩২ হাজার মানুষ কাঁচা, খোলা ও ঝুলন্ত টয়লেট ব্যবহার করেন। রংপুর বিভাগের প্রায় ১ কোটি ৭৪ লাখ ৬৮ হাজার মানুষ ফ্লাশ করে কিংবা পানি ঢেলে নিরাপদভাবে টয়লেট সুবিধা ব্যবহার করেন। অন্যদিকে এই বিভাগের ১৪ লাখ ৭৫ হাজার মানুষ কাঁচা, খোলা ও ঝুলন্ত টয়লেট ব্যবহার করেন। রাজশাহী বিভাগের প্রায় ১ কোটি ১৩ লাখ মানুষ ফ্লাশ করে কিংবা পানি ঢেলে নিরাপদভাবে টয়লেট সুবিধা ব্যবহার করেন। অন্যদিকে এই বিভাগের ১০ লাখ ৩১ হাজার মানুষ কাঁচা, খোলা ও ঝুলন্ত টয়লেট ব্যবহার করেন।

খুলনা বিভাগের প্রায় ৯৫ লাখ ৮০ হাজার মানুষ ফ্লাশ করে কিংবা পানি ঢেলে নিরাপদভাবে টয়লেট সুবিধা ব্যবহার করেন। অন্যদিকে এই বিভাগের ৭ লাখ ৮৬ হাজার মানুষ কাঁচা, খোলা ও ঝুলন্ত টয়লেট ব্যবহার করেন। বরিশাল বিভাগের প্রায় ৩৪ লাখ ৭১ হাজার মানুষ ফ্লাশ করে কিংবা পানি ঢেলে নিরাপদভাবে টয়লেট সুবিধা ব্যবহার করেন। অন্যদিকে এই বিভাগের ১ লাখ ৬৫ হাজার মানুষ কাঁচা, খোলা ও ঝুলন্ত টয়লেট ব্যবহার করেন।

ময়মনসিংহ বিভাগের প্রায় ৪৭ লাখ ৩৩ হাজার মানুষ ফ্লাশ করে কিংবা পানি ঢেলে নিরাপদভাবে টয়লেট সুবিধা ব্যবহার করেন। অন্যদিকে এই বিভাগের ৮ লাখ ৪০ হাজার মানুষ কাঁচা, খোলা ও ঝুলন্ত টয়লেট ব্যবহার করেন। সিলেট বিভাগের প্রায় ৫ লাখ ১২ হাজার মানুষ ফ্লাশ করে কিংবা পানি ঢেলে নিরাপদভাবে টয়লেট সুবিধা ব্যবহার করেন। অন্যদিকে এই বিভাগের ১০ লাখ ৬৬ হাজার মানুষ কাঁচা, খোলা ও ঝুলন্ত টয়লেট ব্যবহার করেন।

২০২২ সালে পরিচালিত ‘জনশুমারি ও গৃহগণনা’য় দেখা গেছে, সবমিলিয়ে দেশের ২০ লাখ ৪৪ হাজার মানুষ খোলা জায়গায় মলত্যাগ করেন। বিপরীতে ফ্লাশ করে কিংবা পানি ঢেলে নিরাপদভাবে টয়লেট সুবিধা ব্যবহার করেন ৯ কোটি ২৫ লাখ ৫৫ হাজার মানুষ। অন্যদিকে দেশের ৬৭ লাখ ২২ হাজার মানুষ কাঁচা, খোলা ও ঝুলন্ত টয়লেট ব্যবহার করেন।

সিপি

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

ksrm