চট্টগ্রামে নিচু এলাকা জলমগ্ন, ২৪ ঘণ্টায় ৪৭ মিলিমিটার বৃষ্টি

চট্টগ্রামে ২৪ ঘণ্টায় ৪৭ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে।

চট্টগ্রাম পতেঙ্গা আবহাওয়া অফিস সূত্র এ বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

পতেঙ্গা আবহাওয়া অফিফের আবহাওয়াবিদ উজ্জ্বল কান্তি পাল বলেন, মৌসুমী বায়ু বাংলাদেশে ঢুকে গেছে। আর এ প্রভাবেই বৃষ্টিপাত হচ্ছে। ২৪ ঘণ্টায় ১ থেকে ১০ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হলে তাকে হালকা বৃষ্টিপাত বলে। ১১ থেকে ২২ মিলিমিটার হলে তাকে হালকা থেকে মাঝারী বৃষ্টিপাত বলে। ২৩ থেকে ৪৩ মিলিমিটার হলে তাকে মাঝারী ভারী বৃষ্টিপাত বলে। ৪৪ থেকে ৮৮ মিলিমিটার হলে তাকে ভারী বৃষ্টিপাত বলে। এর বেশি হলে তখন সেই বৃষ্টিকে অতিভারী বৃষ্টিপাত বলা হয়।

শনিবার বিকেল ৩টা পর্যন্ত ৪৭ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত রেকর্ড করা হয়েছে চট্টগ্রাম নগরীতে। হিসেবে এ বৃষ্টিপাতকেক হালকা থেকে মাঝারী বৃষ্টিপাত বলা হচ্ছে।

তবে সন্ধ্যার পর আবারও হালকা থেকে মাঝারী বৃষ্টিপাত টানা কয়েকঘন্টা হতে পারে বলে জানান উজ্জ্বল কান্তি পাল।

এদিকে, নগরের নিচু এলাকাগুলোর মধ্যে চকবাজার, বাকলিয়া, শুলকবহর, আগ্রাবাদ, হালিশহর, মুরাদপুর, বহদ্দারহাট, কাপাসগোলা, প্রবর্তক মোড়, কে বি আমান আলী রোড, ডিসি রোড, চান্দগাঁও, ষোলশহর ২ নম্বর গেট, মেয়র গলি, আগ্রাবাদ এক্সেস সড়ক, নাসিরাবাদ ও দেওয়ানবাজারসহ বিভিন্ন এলাকা হাঁটু পানিতে তলিয়ে যায়। পানি ঢুকে গেছে বিভিন্ন বাসায়।

চট্টগ্রামের বৃহৎ পাইকারি বাজার খাতুনগঞ্জের বিভিন্ন ব্যবসা প্রতিষ্ঠানও বৃষ্টির পানিতে প্লাবিত হয়েছে। এতে ব্যাহত হয় তাদের ব্যবসায়িক কার্যক্রম।

আইএমই/এমএফও

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!