চট্টগ্রামে রেলের পোর্ট ইয়ার্ডে হরিলুট, আরএনবির সাতজন বদলি, চিফ কমান্ড্যান্টকে জেরা

এক সিপাহী ১৪ বছর ধরেই ছিলেন একই কর্মস্থলে

0

চট্টগ্রাম নগরীর হালিশহর এলাকায় রেলওয়ের চট্টগ্রাম পোর্ট ইয়ার্ডের (সিজিপিওয়াই) লোকোশেড থেকে দীর্ঘদিন ধরে চুরি ও পাচার হয়ে যাচ্ছিল তেলসহ মূল্যবান যন্ত্রাংশ। ওই লোকোশেডের কর্মকর্তা-কর্মচারীরাই নিজেরা যোগসাজস করে তেল চুরির সঙ্গে জড়িত রয়েছেন। এদের সঙ্গে যোগসাজশ রয়েছে রেলওয়ে নিরাপত্তা বাহিনীর (আরএনবি) বেশকিছু সদস্যেরও। এদের মধ্যে অনেকে সর্বনিম্ন ৬ বছর থেকে এমনকি ১৪ বছর ধরে একই লোকোশেডের দায়িত্বে থেকে অনিয়ম ও দুর্নীতিতে জড়িয়ে পড়েন বলে অভিযোগ রয়েছে।

এমন সব অভিযোগ পেয়ে গত ৩ মার্চ দিনভর চট্টগ্রাম পোর্ট ইয়ার্ডের (সিজিপিওয়াই) লোকোশেডে অভিযান চালায় দুর্নীতি দমন কমিশনের সমন্বিত জেলা কার্যালয়-১ এর দুজন সহকারী পরিচালকের নেতৃত্বে একটি দল।

এর পাঁচদিন পর মঙ্গলবার (৮ মার্চ) দুপুরে রেলওয়ে পূর্বাঞ্চল আরএনবির চিফ কমান্ড্যান্ট জহিরুল ইসলামকে এক ঘন্টা ধরে জিজ্ঞাসাবাদ করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)। দুদক কর্মকর্তারা এ সময় চিফ কমান্ড্যান্ট জহিরুল ইসলামকে আরএনবি সদস্যদের বদলি ও পদায়ন করার বিষয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করেন।

এর আগে গত গত ৩ মার্চ সিজিপিওয়াই লোকোশেডে দুদকের অভিযানের পরপরই ওই লোকোশেডের একজন খালাসি জিয়াউল হককে সাময়িক বরখাস্ত করে রেলওয়ে কর্তৃপক্ষ। তেলচুরি ও অনিয়মের সঙ্গে জড়িত দুজন সিনিয়র উপসহকারী প্রকৌশলীর বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য চিফ ইঞ্জিনিয়ারের দপ্তরে লিখিতভাবে জানানো হয়। এই দুই সিনিয়র উপসহকারী প্রকৌশলী হলেন শফিকুল ইসলাম ও বেলাল হোসেন।

এদিকে গত ৬ ফেব্রুয়ারি আরএনবির চিফ কমান্ডেন্টের পক্ষে সহকারী কমান্ড্যান্ট (সদর) মো. মুজিবুল হক স্বাক্ষরিত এক আদেশে সিজিপিওয়াই লোকোশেডে কর্মরত রেলওয়ের নিরাপত্তা বাহিনীর (আরএনবি) সাত সদস্যকে বদলি করা হয়। এরা বছরের পর বছর ধরে তদবির করে সিজিপিওয়াই লোকোশেডে থেকে অনিয়ম ও দুর্নীতিতে জড়িয়ে পড়েন।

Yakub Group

বদলির আদেশ পাওয়া সিজিপিওয়াইয়ের সিপাহী শহীদুল ইসলাম ও মাহফুজ আলমকে রেলওয়ে পাহাড়তলী কারখানায়, অজয় দাশকে পাহাড়তলী স্টোর্সে, মো. আবদুল মালেককে চট্টগ্রাম জেনারেল শাখায়, মো. তারেক রহমানকে পাহাড়তলী স্টোর্সে, মাহমুদুল হাসানকে সিআরবিতে এবং অমল চাকমাকে আরএনবির গোয়েন্দা শাখায় বদলি করা হয়েছে।

এর মধ্যে সিপাহী শহীদুল ইসলাম গত ১৪ বছর ধরেই সিজিপিওয়াই লোকোশেডে কর্মরত ছিলেন। সিপাহী আবদুল মালেক সাড়ে ৯ বছর ধরে, সিপাহী মাহমুদুল হাসান ৯ বছর ধরে, সিপাহী অমল চাকমা সাড়ে ৮ বছর ধরে এবং সিপাহী অজয় দাশ ৬ বছর ধরে সিজিপিওয়াই লোকোশেড আঁকড়ে ছিলেন।

এছাড়া একইদিন অপর এক আদেশে আরএনবির বিভিন্ন শাখার আরও সাত সিপাহীকে বিভিন্ন স্থানে বদলি করা হয়। এর মধ্যে পাহাড়তলী স্টোর্স থেকে সিজিপিওয়াইয়ে বদলি করা হয়েছে সিপাহী মো. আলী, মো. আনোয়ার হোসেন ও মো. আনিসুর রহমানকে, সিআরবি থেকে সিজিপিওয়াইয়ে বদলি করা হয়েছে মো. সাদ্দাম হোসেন ও শাহাদাত হোসেন করিমকে, চট্টগ্রাম অস্ত্র শাখা থেকে সিজিপিওয়াইয়ে বদলি করা হয়েছে এহসান উদ্দিনকে।

সিপি

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm