চট্টগ্রামে বিজিবি সদস্যের স্ত্রী খুনে প্রতিবেশী যুবক গ্রেপ্তার

চট্টগ্রাম নগরীর ইপিজেড এলাকায় শামীমা আক্তার নামের এক গৃহবধূকে হত্যার পর স্বর্ণালঙ্কার ও টাকা লুট করে নিয়ে যাওয়ার ঘটনায় প্রতিবেশী কিবরিয়া জাফরকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। উদ্ধার করা হয়েছে স্বর্ণের দুল, আংটি ও মোবাইল।

সোমবার (১২ সেপ্টেম্বর) ইপিজেড থানায় সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান চট্টগ্রাম নগর পুলিশের উপ-কমিশনার (বন্দর) শাকিলা সুলতানা।

নিহত শামীমা পটুয়াখালীর বাউফল থানার জামাল উদ্দিনের স্ত্রী। জামাল উদ্দিন রাঙামাটিতে বাংলাদেশ বর্ডার গার্ডে (বিজিবি) কর্মরত আছেন বলে জানা গেছে।

শাকিলা সুলতানা বলেন, ‘রোববার চট্টগ্রাম নগরীর ইপিজেড থানার নিউমুরিংয়ের একটি ভবনে শামীমা নামের এক নারীকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করা হয়। এরপর হাত-পা বেঁধে মুখে কাপড় দিয়ে রাখে। হত্যার পর বাসায় থাকা স্বর্ণ ও একটি মোবাইল ফোন নিয়ে যায়। এ ঘটনায় নিহতের ভাই মো. আজম বাদি হয়ে ইপিজেড থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। পরে তথ্য প্রমাণের ভিত্তিতে মো. কিবরিয়া জাফরকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে।‘

চট্টগ্রাম নগর পুলিশের এ উপ-কমিশনার (বন্দর) বলেন, ‘কিবরিয়া প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে ঘটনার সঙ্গে নিজের সম্পৃক্ততার কথা স্বীকার করেছেন। আর্থিকভাবে অস্বচ্ছলতার কারণে পূর্ব পরিকল্পিতভাবে ওই গৃহবধূকে খুন করে স্বর্ণ ও মোবাইল লুট করে নিয়ে যান তিনি।’

Yakub Group

তিনি বলেন, ‘কিবরিয়া শনিবার গভীররাত রাত ২টার পর ভিকটিম শামীমার দরজায় নক দেন। কিবরিয়া পূর্ব পরিচিত ও পার্শ্ববর্তী ভাড়াটিয়া হওয়ায় শামীমা রুমের দরজা খোলেন। রুমে প্রবেশ করেই কিবরিয়া তাকে শ্বাসরোধ করে হত্যা করে তিনটি স্বর্ণের দুল, দুটি স্বর্ণের আংটি ও একটি মোবাইল লুট করে নিয়ে পালিয়ে যান।’

গতকাল রোববার (১১ সেপ্টেম্বর) দুপুরে চট্টগ্রামের নিউমুরিং তক্তারপুল আবুল ফয়েজের বিল্ডিংয়ের ৫ম তলার ভাড়া বাসা থেকে শামীমা আক্তার নামের এক গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

আরএম/ডিজে

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

ksrm