চট্টগ্রামে ছাত্রলীগ সভাপতির পদ ছাড়ছেন ইমু, গ্রুপ মেসেঞ্জারে অডিও বার্তা!

নানা বিতর্কের পরেও বহাল তবিয়তে আছে চট্টগ্রাম মহানগর ছাত্রলীগের মেয়াদোত্তীর্ণ কমিটি। বর্তমান কমিটির ব্যাপারে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের কাছে একাধিকবার নালিশ গেলেও কোন ব্যবস্থা নেওয়া হয়নি। এবার নগর ছাত্রলীগের সভাপতির পদ থেকে ইমরান আহমেদ ইমু পদত্যাগ করছেন এমন গুঞ্জন উঠেছে। এক অডিও ক্লিপে ইমু নিজই ছাত্রলীগ থেকে বিদায় নেওয়ার কথা বলেছেন। এরপর নগর কমিটি ভাঙছে কি-না তা নিয়ে শুরু হয়েছে নতুন গুঞ্জন।

নিজের অনুসারীদের ম্যাসেঞ্জার গ্রুপে এক অডিওতে ইমু বলেছেন, ‘প্রিয় বন্ধুরা আসসালামু আলাইকুম। ছুটির ঘন্টা বেজে গেছে। এ মাস মহানগর ছাত্রলীগের শেষ মাস। আমি আগামীকালকে রাতে ঢাকায় যাচ্ছি কেন্দ্রীয় নেতৃবৃন্দের সাথে দেখা করতে। আপনারা কেউ চাইলে যে যার মতো করে যেতে পারেন। আর সিটি কলেজ ছাত্রলীগ, ছাত্র সংসদের যাওয়া উচিত। ধন্যবাদ। জয় বাংলা, জয় বঙ্গবন্ধু।’

ছাত্রলীগের একাধিক সূত্র বলছে, নগর যুবলীগের কমিটিতে পদ পেতে ইমু ছাত্রলীগের কমিটিতে থেকে পদত্যাগ করতে পারেন। গত ৩০ মে মহানগর যুবলীগের সম্মেলনে সাধারণ সম্পাদক পদে প্রার্থী হন ইমু। তবে ইমু এখন চট্টগ্রামে অবস্থান করছেন।

এর মধ্যে ইমু গতকাল সোমবার (১৮ জুলাই) নিজের ফেসবুক টাইমলাইনে লিখেন,‘হ্যালো কি খবর? কামিং সুন।’ এই স্ট্যাটাসটিও পদত্যাগকে ইঙ্গিত করে দেওয়া হয়েছে বলে মনে করছে ছাত্রলীগের একাধিক শীর্ষ নেতা।

এ বিষয়ে জানতে ইমুর মোবাইলে নম্বরে কল দিলে তার মোবাইল বন্ধ পাওয়া যায়।

এদিকে মহানগর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক জাকারিয়া দস্তগীরের এ বিষয়ে প্রতিক্রিয়া চাইলে চট্টগ্রাম প্রতিদিনকে তিনি বলেন, ‘কষ্ট করে ওনার (সভাপতি) কাছে জিজ্ঞেস করেন। ওনার বক্তব্য তো, উনি ভালো ব্যাখ্যা দিতে পারবেন। আমাদের কর্মসূচিগুলো মহানগর ছাত্রলীগের প্যাডে জানিয়ে দেওয়া হয়।’

Yakub Group

২০১৩ সালের ৩০ অক্টোবর ইমরান আহমেদ ইমুকে সভাপতি ও নূরুল আজিম রনিকে সাধারণ সম্পাদক করে চট্টগ্রাম মহানগর ছাত্রলীগের ২৪ জনের আংশিক কমিটি ঘোষণা করে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ। পরে ২৯১ জনের পূর্ণাঙ্গ কমিটি করা হয়। সিলেকশনের মাধ্যমে গঠিত ওই কমিটির মেয়াদ ছিল এক বছর। এর মধ্যে সাধারণ সম্পাদকের পদ খালি হওয়ায় সেখানে স্থান করে নেন জাকারিয়া দস্তগীর।

এরপর থেকে মেয়াদোত্তীর্ণ কমিটি দিয়ে চলছে নগর ছাত্রলীগ। গঠনতন্ত্র অনুযায়ী দ্বিবার্ষিক সম্মেলনের মধ্যদিয়ে নতুন কমিটি ঘোষণার কথা।

আরএম/সিপি

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!