চট্টগ্রাম রেলের আরএনবি সদস্য মারধরের ঘটনায় মামলা নেয়নি কমলাপুর জিআরপি

চট্টগ্রামে রেলওয়ে নিরাপত্তা বাহিনীর (আরএনবি) এক সদস্যকে মারধরের ঘটনার চারদিন পার হলেও এখনও মামলায় নেয়নি জিআরপি থানা পুলিশ।

শুক্রবার (১১ নভেম্বর) বাহিনী সিপাহী রাকিবুল হাসান লোকোমাস্টার আব্দুল আলিম (৫৬) ও সহকারী লোকোমাস্টার ফরিদ শেখের নাম উল্লেখ করে এজাহার দেন। কিন্তু এখন সেই এজাহারকে মামলা হিসেবে নেয়নি কমলাপুর জিআরপি।

এর আগে বৃহস্পতিবার (১০ নভেম্বর) চট্টগ্রাম থেকে ঢাকাগামী সূবর্ণ এক্সপ্রেস ট্রেনের গার্ডব্রেকে নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্য ফারুক মিয়ার (৩০) সঙ্গে ওই ট্রেনের সহকারী লোকোমাস্টার ফরিদ শেখের (এএলএম) সঙ্গে মারামারির ঘটনা ঘটে। ওইদিন দুপুর সাড়ে ১২টার দিকে বিমানবন্দর স্টেশন ট্রেনের ওয়াশরুমে যাওয়াকে কেন্দ্র করে তাদের মধ্যে এই ঘটনা ঘটে।

আরএনবির সিপাহী রাকিবুল হাসান বলেন, ‘এজাহার জমা দিলেও মামলা নিতে গড়িমসি করছে কমলাপুর জিআরপি।’

তবে অভিযোগ অস্বীকার করে কমলাপুর জিআরপি থানা সেকেন্ড অফিসার সেকান্দার বলেন, ‘উভয়পক্ষই রেলওয়েকর্মী। বিষয়টি মীমাংসার চেষ্টা চলছে, তাই মামলা হয়নি। মীমাংসা না হলেই মামলা রেকর্ড হবে।’

ঢাকা পূর্বাঞ্চল নিরাপত্তা বাহিনী কমান্ড্যান্ট শহিদুল্লাহ বলেন, ‘আহত সিপাহী হাসপাতালে ভর্তি রয়েছেন। যুবলীগের সম্মেলন নিয়ে সবাই ব্যস্ত। তাছাড়া উভয়ই রেলকর্মী, তাই রেলের ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ বিষয়টি নিয়ে সিদ্ধান্ত দেবেন।’

Yakub Group

জেএস/ডিজে

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

ksrm