ঘূর্ণিঝড়ে ডুবে যাওয়া জাহাজকর্মীর মরদেহ ভেসে এলো সীতাকুণ্ডের উপকূলে

চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ড উপজেলার কুমিরা সাগর উপকূলে ভেসে এলো ঘূর্ণিঝড়ে ডুবে যাওয়া এক জাহাজকর্মীর মরদেহ।

নিহতের নাম মো. এমদাদুল হক রাসেল (২২)। তিনি কুমিল্লা জেলার নাঙ্গল কোর্টের মৃত রফিকুল ইসলামের ছেলে।

রোববার (১৯ নভেম্বর) সকাল ১০টার দিকে কুমিরা সাগর উপকূল থেকে মরদেহটি উদ্ধার করে নৌপুলিশ।

এদিকে নিহতের ভাই অহিদুল্লা জানান, তার ভাই রাসেল একটি জাহাজের শ্রমিক ছিলেন। গত ১৭ নভেম্বর ঘূর্ণিঝড় মিধিলির কবলে পড়ে বঙ্গোপসাগরের হাতিয়া উপকূলে জাহাজটি ডুবে যায়। এরপর তার কোনো খোঁজ পাওয়া যায়নি। জাহাজের অন্যান্য শ্রমিকরা সাঁতরে কূলে উঠলেও রাসেলের কোনো সন্ধ্যান মেলেনি।

রোববার তার মরদেহ সীতাকুণ্ড উপজেলার কুমিরা ইউনিয়নের সাগর উপকূলে ভেসে আসছে বলে জানতে পারি। পরে মরদেহটি আমার ভাই রাসেলের বলে শনাক্ত করি আমি।

এ বিষয়ে কুমিরা নৌপুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ মোহাম্মদ নাছির বলেন, ‘কুমিরা ইউনিয়নের সাগর উপকূলে এক যুবকের মরদেহ সাগরে ভাসতে দেখেন স্থানীয় উপকূলবাসী। পরে খবর পেয়ে আমরা ও গাউছিয়া কমিটির সদস্যরা মিলে যৌথভাবে মরদেহটি উদ্ধার করি। পরে তার স্বজনদের খবর দিলে নিহতের ভাই অহিদুল্লা এসে মরদেহ শনাক্ত করেন।’

Yakub Group

তিনি বলেন, ‘এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা শেষে তার ভাইয়ের হাতে মরদেহটি তুলে দেওয়া হয়েছে।’

ডিজে

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!