এক বিয়ের লোকজন অন্য বিয়েতে, কর্ণফুলীতে তুমুল লড়াই দুই গ্রুপের

চট্টগ্রামের কর্ণফুলী উপজেলায় একটি কমিউনিটি সেন্টারে দুই বিয়ের অনুষ্ঠানে দাওয়াত খাওয়া নিয়ে দুই পক্ষের সংঘর্ষ হয়েছে। এতে নারীসহ উভয় পক্ষের কমপক্ষে ৬ জন আহত হয়।

শুক্রবার (৯ সেপ্টেম্বর) দুপুর আড়াইটার দিকে জুলধা ইউনিয়নের নুরে মদিনা কমিউনিটি সেন্টারে এ ঘটনা ঘটে।

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে শাহমীরপুর পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ অমিভাত দত্ত জানান, ‘বিয়ের অনুষ্ঠানে দুই পক্ষের হাতাহাতি হয়েছে। এমন অভিযোগ নিয়ে কিছু লোকজন ফাঁড়িতে এসে জানিয়েছেন। তবে ঘটনা শোনে মনে হয়নি গুরুতর কিছু। তাই পুলিশ টিম পাঠাইনি। আমাদের মোবাইল টিম ফকিন্নির হাটে মন্ত্রী মহোদয়ের প্রটোকলে আছে।’

স্থানীয় সুত্র ও ঘটনাস্থল থেকে নুর উদ্দীন নামে এক যুবক জানান, ‘দুপুরে জুলধা জামতলা বাজারের নুরে মদিনা কমিউনিটি সেন্টারে একই সাথে দুই পক্ষের লোকজন বিয়ের আয়োজন করেন। কমিউনিটি সেন্টারের দ্বিতীয় তলায় বিয়ের আয়োজন করেন জুলধা ৮ নম্বর ওয়ার্ডের বাসিন্দা আব্দু শুক্কুরের ছেলে একরাম। আর নিচে আয়োজন করা হয় জুলধা পাইপের ঘোড়াবাজার সংলগ্ন হক সওদাগর বাড়ির আব্দুল গফুরের মেয়ে রাশেদা আক্তারের।

দুই পক্ষের অনুষ্ঠান চলাকালে এক বিয়ের লোকজন অন্য বিয়েতে প্রবেশ করে দাওয়াত খাওয়াকে কেন্দ্র করে উভয় পক্ষের মধ্যে কথা কাটাকাটি ও হাতাহাতি হয়। এ নিয়ে বরপক্ষের লোকজন প্রথমে চেয়ার টেবিল, গ্লাস, বোতল ও ভাঙচুর করলে দুই গ্রুপের ধাওয়া পালটা ধাওয়া ও সংঘর্ষ হয়।

Yakub Group

এতে আহত হয় জুলধা গ্রামের গোলাম মোস্তফার মেয়ে মরিয়ম খাতুন ও কামাল হোসেন নামে যুবকসহ উভয় পক্ষের প্রায় ৬ জন। স্থানীয়রা আহতদের উদ্ধার করে চট্টগ্রাম মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যায়।

জানা যায়, কমিউনিটি সেন্টারটির মালিক জুলধা ইউনিয়নের বর্তমান চেয়ারম্যান নুরুল হক। ঘটনার বিষয়ে জানতে চাইলে চেয়ারম্যান আলহাজ্ব নুরুল হক বলেন, ‘এ ধরনের কোনো ঘটনা ঘটেনি। আপনাদের এসব কে বলে?’ এটুকু বক্তব্য দিয়ে তিনি মোবাইল ফোনের সংযোগ বিচ্ছিন্ন করে দেন।

কমিউনিটি সেন্টারের ১০০ গজ দূরত্বে শাহমীরপুর পুলিশ ফাঁড়িতে খবর দেওয়া হলেও পুলিশ ঘটনাস্থলে এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে কোনো ভূমিকা রাখেননি বলে অভিযোগ করেন বিয়েতে আসা লোকজন। ফাঁড়ির ইনচার্জ অমিভাত দত্ত জানান, ‘বড় ধরনের কোনো সংঘাত হয়নি। পরে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠাবো।’

এমএফও

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

ksrm