আক্রান্ত
২০২০১
সুস্থ
১৫৭৫৬
মৃত্যু
৩০১

উখিয়ায় ৪দিন ধরে নিখোঁজ আদিবাসী কিশোরী

পরিবার বলছে অপহরণ

0

প্রাইভেট পড়তে গিয়ে আর ফিরে আসেনি আদবাসী কিশোরী রিতা চাকমা। ঘটনার পর ৪দিন গেল এখনও খোঁজ মেলেনি রিতার। পরিবার বলছে নিখোঁজ নয় অপহরণ করা হয়েছে রিতাকে। রিতার পরিবার মো. রিদুয়ান নামের একজনকে এ ঘটনার জন্য দায়ী বলেও দাবি করেছেন। এদিকে এ ঘটনায় থানায় সাধারণ ডায়েরি হলেও এখনও রিতার বিষয়ে কোন তথ্য নেই পুলিশের কাছে। ঘটনাটি ঘটেছে কক্সবাজারের উখিয়ার জালিয়াপলং ইউনিয়নের মনখালী চাকমা পাড়ায়।

নিখোঁজ হওয়া রিতা চাকমা (১৪) জালিয়াপালং ইউনিয়নের মনখালী চাকমাপাড়া এলাকার সুচি মোহন চাকমার মেয়ে। রিতার বাবা সূচিমোহন ২৯ সেপ্টেম্বর উখিয়া থানায় একটি লিখিত ডায়েরি করেন।

ঘটনা সূত্রে জানা যায়, গত ২৭ সেপ্টেম্বর সকাল ১০টার দিকে শামলাপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে প্রাইভেট পড়তে গিয়ে আর ফিরে আসেনি রিতা। রিতা ৭ম শ্রেণিতে পড়ে। প্রথমদিকে রিতার পরিবার একই এলাকার বেশ কয়েকজনকে সন্দেহ করলেও পরে তারা একই এলাকার বদিউল আলমের ছেলে মো. রিদুয়ানকে সন্দেহ করছে। এ বিষয়ে পরিবার থানা পুলিশকেও অবহিত করেছে বলে জানা যায়।
স্থানীয় ইউপি সদস্য মোহাম্মদ মোছা বলেন, ‘মনখালী থেকে স্কুল পড়ুয়া আদীবাসী কিশোরী নিখোঁজের ঘটনাটি খিুব উদ্বেগজনক। রিতার পরিবারের লোকজন স্থানীয় কয়েকজনকে সন্দেহ করেছিল। তাদেরকে জিজ্ঞাসাবাদে কোন তথ্য পাওয়া যায়নি। তবে রিদুয়ানের মোবাইলে রিতার কয়েকটি ম্যাসেজ পাওয়া গেছে। ফলে তাকেই সন্দেহ করছে রিতার পরিবার।’

মোছা আরও বলেন, ‘এ ধরনের ঘটনায় এলাকার শৃঙ্খলা নষ্ট হতে পারে। তাই রিতাকে যে খুঁজে দেবে বা খবর দেবে তাকে পুরস্কৃত করা হবে।’

এ ব্যাপারে জানতে উখিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ আহমেদ মঞ্জুর মোর্শেদ বলেন, ‘স্কুল ছাত্রী রিতা চাকমা নিখোঁজের বিষয়ে আমি এখনও অবগত নই। তবে ডায়েরি করা হলে অবশ্যই আইনি পদক্ষেপ নেব।’

এসএস

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

ManaratResponsive

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

আরও পড়ুন
ksrm