আক্রান্ত
২০২০১
সুস্থ
১৫৭৫৬
মৃত্যু
৩০১

ইসলামী ব্যাংক হাসপাতালের ‘ভুল অপারেশন’, জীবনের আলো হারালেন চবির তাওহীদ

2

চট্টগ্রামের আগ্রাবাদ ইসলামী ব্যাংক হাসপাতালে টনসিল অপারেশনের জন্য ভর্তি, সেখানে অপারেশন শেষে অবস্থার অবনতি হলে নিয়ে যাওয়া হয় চট্টগ্রাম মা ও শিশু হাসপাতালে। ভর্তি করানো হয় আইসিইউতে। টানা ১০ দিনেও অবস্থার উন্নতি না হলে বৃহস্পতিবার (২৪ সেপ্টেম্বর) দুপুরে শেষ ভরসা হিসেবে নিয়ে আসা হয় চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে। সেখানেই কয়েকঘণ্টা পর জীবনপ্রদীপ নিভে যায় চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী মোহাম্মদ তাওহীদুজ্জামানের

চবির আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের ২০১৪-১৫ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থী মোহাম্মদ তাওহীদুজ্জামান কক্সবাজারের চকরিয়া উপজেলার শিকলঘাট এলাকার হাফেজ কামাল উদ্দিনের ছেলে।

তাওহীদের মৃত্যুর বিষয়টি চট্টগ্রাম প্রতিদিনকে নিশ্চিত করেছেন তাওহীদের জেঠাতো ভাই চট্টগ্রাম ক্যান্টনমেন্ট পাবলিক কলেজের সিনিয়র শিক্ষক আশ্রাফুজ্জামান।

তিনি বলেন, গত ১৪ সেপ্টেম্বর আগ্রাবাদ ইসলামী ব্যাংক হাসপাতালে তাওহীদের গলার টনসিলের অপারেশন হয়েছে। অপারেশনের পর ডাক্তররা জানিয়েছেন অপারেশন সাকসেসফুল হয়েছে। তবে হার্টে সমস্যার কারণে সে হার্ট অ্যাটাক করেছে। কিন্তু তার হার্টে কোন সমস্যা ছিল না। মূলত তার ভুল অপারেশন হয়েছে। কিন্তু ডাক্তাররা স্বীকার করছেন না। পরবর্তীতে শারীরিক অবস্থার অবনতি হলে তাকে মা ও শিশু হাসপাতালের আইসিইউতে ভর্তি করানো হয়। সেখানে ১০ দিন চিকিৎসাধীন থাকার পর অবস্থা আরও খারাপ হলে বৃহস্পতিবার দুপুরে তাকে চমেকে আনা হয়। পরে সন্ধ্যা ৬ টার দিকে তিনি মারা যান।

তাওহীদের সহপাঠী জুনায়েদ শরীফ বলেন, তাওহীদ পরোপকারী ও ভালো ছেলে ছিল। হাসিখুশি থেকে সবসময় আমাদের আড্ডা জমিয়ে রাখতো। সে কুরআনের হাফেজ ও একটি মসজিদের খতীব ছিল।

জুনায়েদ আরও বলেন, ডিপার্টমেন্টে বরাবরই তার রেজাল্ট ভালো ছিল। পড়াশোনার পাশাপাশি বিভিন্ন সামাজিক কার্যক্রমেও তার পদচারণা ছিল সমানতালে।

এদিকে, তাওহীদের অকাল মৃত্যুতে বন্ধু-বান্ধব, সহপাঠী, শিক্ষকদের মাঝে শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

এমআইটি/এএইচ

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

ManaratResponsive
2 মন্তব্য
  1. জাহেদুল বলেছেন

    ডাহা একটা মিথ্যা কথা বলে দিতে পারলেন। উনার চিকিৎসাতো মা ও শিশুতেই হয়েছিল। টাকা কত খেয়েছেন জানতে পারি।

  2. Md sayed বলেছেন

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

আরও পড়ুন
ksrm