s alam cement
আক্রান্ত
১০২৪১৫
সুস্থ
৮৬৮৫৬
মৃত্যু
১৩৩১

অন্তঃসত্ত্বাকে পুঁজি করে শতাধিক চুরি, চট্টগ্রামজুড়ে চুরি করে বেড়ান রাবেয়া

0

চুরি করতে গিয়ে ধরা পড়লেন আট মাসের অন্তঃসত্ত্বা রাবেয়া আক্তার নেহা (২৩)। চার মাসের অন্তঃসত্ত্বা হয়েও গ্রেফতার হন তিনি পুলিশের হাতে। এর আগেও চারবার এলাকাবাসীর হাতে ধরা পড়েন চুরি করতে গিয়ে। এ ঘটনা ঘটেছে চট্টগ্রামের ডবলমুরিং থানার আগ্রাবাদ এলাকায়। সোমবার (২ আগস্ট) ভোরে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

পুলিশি জিজ্ঞাসাবাদে রাবেয়া জানান, নারী হিসেবে সহানুভূতি কাজে লাগিয়ে শতাধিক চুরি করে করেছেন রাবেয়া। অধিকাংশ ক্ষেত্রেই ধরা না পড়ায় তার বিরুদ্ধে মামলা হয় চারটি। পুরো চট্টগ্রামেই তিনি চুরি করেন। বর্তমানে তিনি আট মাসের অন্তঃসত্ত্বা। এ বিষয়টি তার চুরিতে বাধা হওয়ার কথা থাকলেও তিনি এটাকেই করেছেন পুঁজি। গর্ভবতী হওয়ায় সহজেই কেউ সন্দেহ করে না। আবার ধরা পড়ে গেলেও আলাদা সহানুভূতি কাজ করে। তাই অবস্থায়ও তিনি চুরি থামাননি। অন্তঃসত্ত্বা অবস্থায়ও চুরি করেছেন আটবার। এর ভেতর এলাকাবাসীর কাছে ধরা পড়লেও সহানুভূতি দেখিয়ে তাকে ছেড়ে দিয়েছেন তারা।

ডবলমুরিং থানার ওসি মোহাম্মদ মহসীন বলেন, ‘রাবেয়া চট্টগ্রামজুড়ে কৌশলে মানুষের সহানুভূতিকে কাজে লাগিয়ে চুরি করে। তিনি চুরি করেন খুবই ভোরে। সে সময় অনেকে নামায পড়তে যায়। অনেকে ব্যায়াম করতে যায়। ততখন অনেক বাসা অসাবধানতাবশত খোলা থাকে। তখনই তিনি চুরি করে পালিয়ে যান।’

তিনি আরও বলেন, ‘সোমবার ভোরে মানিক ম্যানশনে একটি বাসা থেকে মোবাইল ও কাপড় চুরি হয়। পরে এলাকাবাসী সিসিটিভি ফুটেজে রাবেয়াকে শনাক্ত করে। ৯৯৯ এ ফোন দেয়। পরে পুলিশ তাকে আটক করে এবং চুরিকৃত মালামাল উদ্ধার করে। সর্বশেষ চার মাসের অন্তঃসত্ত্বা অবস্থায় মার্চ মাসে ডবলমুরিং থানায় আরও একবার গ্রেপ্তার করা হয় তাকে। রাবেয়ার বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট আইনে আরও একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে।’

আরএ/এমএফও

ManaratResponsive

যখনই ঘটনা, তখনই আপডেট পেতে, গ্রাহক হয়ে যান এখনই!

আপনার মন্তব্য লিখুন

আপনার ইমেইল ঠিকানা প্রকাশিত হবে না।

ksrm